রোববার   ১৯ মে ২০২৪

সর্বশেষ:
জাইকার উপদেষ্টা কমিটির সঙ্গে স্থানীয় সরকার মন্ত্রীর বৈঠক ‘অজান্তে মোবাইল ব্যালেন্স কেটে নিলে কঠোর ব্যবস্থা’ আওয়ামী লীগের যৌথ সভা শুক্রবার বিএনপির নির্বাচন বর্জনের রাজনীতি আত্মহননমূলক : পররাষ্ট্রমন্ত্রী ঢাকা পৌঁছেছেন ভারতের পররাষ্ট্র সচিব গণমাধ্যমের তথ্য প্রাপ্তির অধিকার নিশ্চিত করা হবে: প্রতিমন্ত্রী নির্বাচনে ভোটার উপস্থিতি ছিল সন্তোষজনক : ওবায়দুল কাদের রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে যুক্তরাজ্যের সহায়তা চেয়েছেন প্রধানমন্ত্রী
৩৫৭

Bangladesh`s bourses navigate headwinds and achieve advances

প্রকাশিত: ৪ এপ্রিল ২০২৪  

Professor Shibli Rubayat Ul Islam makes his mark as BSECchairman with innovative deeds

Professor Shibli Rubayat Ul Islam makes his mark as BSECchairman with innovative deeds

A linkage between the academia and the capital market has proved productive as is evident from changes tangible on the bourses in Bangladesh. From infrastructure upgrade to legal reform to a cleanup of the trading floor from accumulated problems--in all major realms have there been touches of reformative strokes.

However, difficulties are not all over--neither here nor elsewhere over the world--specifically because of economic volatility under the hangover of all-upsetting pandemic and proxy wars in lockstep with the coronavirus invasion. So, the capital market here is navigating a rough see and achieving advances in aid to the nation's socioeconomic uplift on a mapped-out trajectory leading to a higher status.

At this crossroads, the capital market, billed as the fulcrum of industrial development through sourcing long-term investment, needed a helmsman conversant in academic rules and tricks of the trade on the floor of transitions.

Prof Shibli Rubayat Ul Islam fills the needs gap, building a bridge between academia and actuation in securities governance, say analysts in trading circles. With him as chairman the Bangladesh Securities and Exchange Commission (BSEC) has made such headway in the realms of financial governance and market regulation.

Since 2020 till 2024, BSEC has navigated challenges and emerged as a beacon of progress, fostering growth and stability on the capital market of Bangladesh. In May 2020, Prime Minister Sheikh Hasina picked Professor Shibli Rubayat Ul Islam as the chairman of the securities regulatory body for a four-year term. And he proved his worth through patiently doing the spadework for giving a nudge to the market with a slew of measures.

To start with, Professor Shibli Rubayat accelerated the approval process for initial public offerings or IPOs to feed fresh securities into the securities-hungry bourses. Then he successfully petitioned the Prime Minister for waiving the Civil Aviation Authority of Bangladesh (CAAB) surcharge on the United Airways with the aim of reviving the airline in November 2022. Prime Minister Sheikh Hasina promptly approved the request, instructing the relevant ministry to initiate necessary actions.

He moves on outlining plans to restructure the boards of select nonbank financial institutions for management overhaul.

His spheres of role play in capital-market administration widens with the assumption of the responsibility of Vice-Chair of the Asia-Pacific Regional Committee of the International Organization of Securities Commissions.

In view of resource constraints, Professor Islam admitted the Bangladesh Securities and Exchange Commission's inability to effectively monitor all the listed companies. Staffing shortages stood in the way. To overcome this shortcoming, he launched an alternative trading board for companies not listed on the stock exchanges and announced forthcoming plans to digitize the commission's services.

Furthermore, in order to infuse dynamism in stocks trading, he pledged to lift floor prices on the stock exchange once market conditions improved. In an effort to boost foreign investment, Mr Shibli Rubayat organized a road show in the United States to project investment opportunities in Bangladesh.

Strengthening regulatory frameworks under Professor Shibli's guidance, BSEC has meticulously worked on enhancing regulatory supervision to ensure transparency, accountability, and investor protection," says one official of the capital-market watchdog.

Furthermore, stringent measures were implemented to combat market manipulation, insider trading, and fraudulent acts--the evils that had once spelt woes for investors. Such actions helped in instilling trust in investors and stakeholders, which spurred a fresh start.

Now comes market-development drive

The BSEC has been instrumental in fostering market-development initiatives aimed at expanding the investor base and diversifying financial products. Efforts to introduce innovative investment instruments, such as Exchange Traded Funds (ETFs) and Real Estate Investment Trusts (REITs), are reported to have injected dynamism into the capital market, attracting both domestic and foreign investors.

Embracing technological advances in trade promotion

Recognizing the pivotal role of technology in modernizing financial systems in the fast-changing milieus, BSEC, under Professor Shibli's stewardship, has espoused technological advancements to streamline operations and enhance

market efficiency. Initiatives like the implementation of automated trading systems and online trading platforms have facilitated smoother transactions while reducing operational risks.

Strengthening corporate governance

The securities regulator has prioritized the enhancement of corporate- governance practices to foster sustainable business growth and mitigate risks associated with mismanagement and malpractices. "Stringent guidelines and monitoring mechanisms have been put in place to ensure compliance with ethical standards and best practices, thus safeguarding the interests of shareholders and promoting long-term value creation," says the aforesaid BSEC official.

Investor education and awareness building

The business-administration academic's tenure as securities regulator witnessed a concerted effort towards educating investors and awareness programmes aimed at empowering them with knowledge and insights into financial markets so they could make informed decision on putting their money in stocks that pay dividends. Seminars, workshops, and educational campaigns were organized to impart financial literacy and promote informed decision-making among investors, thereby reducing vulnerabilities to fraudulent schemes and market volatility.

Strengthening international collaboration

Attuned to the trend of globalization, BSEC has actively engaged in fostering international collaborations and partnerships to leverage global expertise and best practices in regulatory frameworks and market- development strategies. Bilateral agreements and mutual cooperation in initiatives have facilitated knowledge exchange and capacity-building efforts, positioning Bangladesh's capital market on a trajectory of sustainable growth and integration with global financial markets.

A resume on navigating challenges with resilience

It goes without saying that, throughout his tenure, the BSEC, under Professor Shibli's astute leadership, has demonstrated resilience in navigating a trying time fraught with challenges, including economic uncertainties, global-market volatilities, and the unprecedented impacts of the COVID-19 pandemic. Proactive measures were undertaken to ensure market stability, liquidity support, and regulatory flexibility, thereby mitigating adversities and bolstering investor confidence.

The tenure of Professor Shibli Rubayat as Chairman of the Securities Commission is seen as resplendent in significant strides towards giving a fillip to market integrity, investor protection, and sustainable growth. His visionary leadership, coupled with the collective efforts of the regulatory body, has positioned Bangladesh's capital market as a dynamic and resilient engine of economic prosperity, poised for continued advancement in the years ahead, it is stated by a host of admirers of the hard taskmaster at the helm of gaming on bets by hard-to-reign players.

 

আরও পড়ুন
অর্থনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
  • জিয়াউর রহমান বাকশালের সদস্য হয়েছিলেন, দাবি ওবায়দুল কাদেরের

  • মূল্যস্ফীতি হ্রাসই লক্ষ্য

  • আম নিতে চায় রাশিয়া-চীন

  • ফের দুই দিনের হিট অ্যালার্ট জারি

  • উন্নয়ন রূপকল্পের অন্যতম পথিকৃৎ শেখ হাসিনা : ধর্মমন্ত্রী

  • ধর্মান্ধরা সমাজকে পিছিয়ে নিয়ে যাচ্ছে: ভূমিমন্ত্রী

  • অন্য দেশের সঙ্গে প্রদর্শনী বাড়ালে সাংস্কৃতিক সম্পর্ক জোরদার হয়

  • রাজধানীতে ‘কক্সবাজার এক্সপ্রেসের’ বগি বিচ্ছিন্ন

  • নির্বাচনের জন্য ট্যুরিস্ট ভিসাতে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা দিলো ভারত

  • ৩০ ব্যাংকের এমডি যাচ্ছেন যুক্তরাষ্ট্রে

  • নোংরা পরিবেশে তৈরি হচ্ছিলো রাফসানের ব্লু ড্রিংকস

  • জার্মানিতে আবাসিক ভবনে বিস্ফোরণ, নিহত ৩

  • খারকিভে ‘কঠিন লড়াই’ চলছে: জেলেনস্কি

  • সব ধরনের জঙ্গি-সন্ত্রাসবাদ পুলিশের নিয়ন্ত্রণে: আইজিপি

  • জনগণের উন্নয়ন, মির্জা ফখরুলসহ বিএনপির সহ্য হচ্ছে না: আইনমন্ত্রী

  • রোহিঙ্গা ক্যাম্পের মূর্তিমান আতঙ্ক সন্ত্রাসী গোষ্ঠী আরসা: র‌্যাব

  • বাংলাদেশের গ্রামের অর্থনীতি পাল্টে গেছে : প্রধানমন্ত্রী

  • ৬ তারিখে বাজেট দেব, বাস্তবায়নও করব : প্রধানমন্ত্রী

  • চৌদ্দগ্রামে যাত্রীবাহী বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ৫ জনের মৃত্যু

  • দেশকে এগিয়ে নিতে অর্থনীতিবিদদের সহযোগিতা চান প্রধানমন্ত্রী

  • ১৭ মে বাংলাদেশের মানুষের হৃদয়ে গাঁথা থাকবে : আইনমন্ত্রী

  • শেখ হাসিনা গণতন্ত্রকামী মানুষের নেতা : খাদ্যমন্ত্রী

  • টানা ৫ দিন বেনাপোল দিয়ে আমদানি-রপ্তানি বন্ধ

  • দুধ দিয়ে গোসল করানো হলো নাবিক সাব্বিরকে

  • রোহিঙ্গা ক্যাম্পের মূর্তিমান আতঙ্ক সন্ত্রাসী গোষ্ঠী আরসা : র‌্যাব

  • শনিবার থেকে বৃষ্টি হতে পারে

  • শেখ হাসিনাকে অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রীর অভিনন্দন

  • ইসরায়েলি হামলায় এখন পর্যন্ত ৩৫ হাজারের বেশি ফিলিস্তিনি নিহত

  • বেদনানাশক নিয়ে খেলবেন তাসকিন

  • শাহরুখ-অমিতাভদের বিরুদ্ধে মামলার আবেদন খারিজ

  • লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে বেশি বোরো উৎপাদন

  • অতীত ভুলে সামনে তাকাতে চায় যুক্তরাষ্ট্র

  • এসএসসিতে গড় পাসের হার ৮৩.০৪ শতাংশ

  • ফেল করেছে বলে গালমন্দ করবেন না : অভিভাবকদের প্রধানমন্ত্রী

  • অবৈধ অভিবাসী প্রত্যাবাসনে বাংলাদেশকে ‘নিরাপদ’ ঘোষণা ইতালির

  • ‘স্বচ্ছতা নিশ্চিতে ইলেকট্রনিক সরকারি ক্রয় চালু’

  • কূটনৈতিক মিশন খুলতে সম্মত বাংলাদেশ-আয়ারল্যান্ড

  • ঘরে বসেই হজযাত্রীরা পাবে প্রাক-নিবন্ধন রিফান্ডের টাকা

  • ডাবের পানির বিকল্প হিসেবে যে পানীয় পান করতে পারেন

  • জিপিএ-৫ ও পাসের হারে এগিয়ে মেয়েরা

  • ডেঙ্গু ঠেকাতে এবার মাস্টারপ্ল্যান

  • সামাজিক নিরাপত্তাবেষ্টনীর আওতা বাড়ছে বাজেটে

  • কিশোর গ্যাংয়ে জড়ানোর কারণ খুঁজতে হবে : শেখ হাসিনা

  • জুন-জুলাইয়ে হতে পারে প্রধানমন্ত্রীর তিন গুরুত্বপূর্ণ সফর

  • ‘ধানের ন্যায্য মূল্য নিশ্চিত করতে কৃষক অ্যাপ চালু করা হয়েছে’

  • নিউ ইয়র্ক বাংলা বইমেলায় দশ হাজার নতুন বই

  • ‘মা দিবসে মাকে দেওয়া আমার শ্রেষ্ঠ উপহার জিপিএ-৫’

  • পায়রা বন্দরে প্রথমবারের মতো ভিড়লো বিদেশি জাহাজ

  • ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন এবার চলবে পদ্মা সেতু দিয়ে

  • ‘ডোনাল্ড লু সম্পর্ক এগিয়ে নিতে বাংলাদেশ সফরে আসছেন’

  • বিশ্বাসের ঘাটতি হটিয়ে সম্পর্ক দৃঢ় করতে চায় যুক্তরাষ্ট্র

  • ইলিশের মণ লাখ টাকা

  • নভেম্বর-ডিসেম্বরে ওয়েস্ট ইন্ডিজে সফরে যাবে বাংলাদেশ

  • কোরবানির চামড়ার ন্যায্যমূল্য নিশ্চিত করবে সরকার

  • ‘বিএনপি যে কখন তাবিজ-দোয়ার ওপর ভর করে সেটিই প্রশ্ন’

  • ‘জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবিলায় বাংলাদেশের পাশে থাকবে যুক্তরাষ্ট্র’

  • ১৭ মে : জননেত্রীর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন এবং দেশের অগ্রযাত্রা

  • এমপিওভুক্ত শিক্ষকদের ভাতা বাড়ানোর প্রক্রিয়া শুরু

  • ‘বাংলাদেশের সঙ্গে সম্পর্ক আরও ঘনিষ্ঠ করতে চায় যুক্তরাষ্ট্র’

  • ‘নারীবান্ধব শিক্ষানীতির কারণে মেয়েরা পাসের হারে এগিয়ে’