মঙ্গলবার   ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১

সর্বশেষ:
সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোর বার্ষিক ছুটি ৭৫ দিন আগামী মার্চে ঢাকা উত্তর সিটির ভোটের ইঙ্গিত সিইসির আস্থা ভোটে টিকে গেলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় পরিদর্শনে প্রধানমন্ত্রী রাষ্ট্রপতির সঙ্গে নেপালের বিদায়ী রাষ্ট্রদূতের সাক্ষাৎ সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে ইসি প্রতিজ্ঞাবদ্ধ: নূরুল হুদা বারবার আসতে পারব না, যত খুশি সাজা দিন: খালেদা জিয়া ‘আকাশবীণার’ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী ত্রিভুবনে আবারও বিমান দুর্ঘটনা ট্রেন-বাসের সংঘর্ষে নিহত ২, আহত ২৫ ভুয়া ছবি দিয়ে অপপ্রচার চালাচ্ছে মিয়ানমার: প্রধানমন্ত্রী
২৫৭৮

বঙ্গবন্ধুর বাসভবনে উত্তোলন করা হয় স্বাধীন বাংলাদেশের পতাকা

ডেস্ক রিপোর্ট

প্রকাশিত: ২৩ মার্চ ২০১৯  

২৩ মার্চ, ১৯৭১। আওয়ামী লীগ স্বেচ্ছাসেবক বাহিনীর সদস্যদের সামরিক কায়দায় অভিবাদনের মধ্য দিয়ে সকালে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান তাঁর বাসভবনে স্বাধীন বাংলাদেশের পতাকা উত্তোলন করেন। এ সময় ‘জয় বাংলা, বাংলার জয়’ গানটি সমবেত কণ্ঠে পরিবেশিত হয়।

পাকিস্তান দিবসে ঢাকার প্রেসিডেন্ট ভবন ও সেনাবাহিনীর সদর দফতর ছাড়া বাংলাদেশে আর কোথাও পাকিস্তানের জাতীয় পতাকা ওড়েনি। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান আজকের দিনটিকে ‘ঐতিহাসিক লাহোর প্রস্তাব দিবস’ হিসেবে পালন করার জন্য জনগণের প্রতি আহ্বান জানিয়েছিলেন এবং সে অনুযায়ী আজ তিনি সারাবাংলায় সরকারি ছুটি ঘোষণা করেন।

অসহযোগ আন্দোলনের এই দিনে মুক্তিপাগল মানুষ সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত স্বাধীন বাংলাদেশের পতাকা হাতে বঙ্গবন্ধুর বাসভবনের দিকে দৃপ্ত পদক্ষেপে জয় বাংলা, জয় বঙ্গবন্ধু স্লোগান দিয়ে এগিয়ে যায়। ঢাকায় সেক্রেটারিয়েট ভবন, হাইকোর্ট ভবন, পরিষদ ভবন, ইপিআর সদর দফতর, রাজারবাগ পুলিশ সদর দফতর, ঢাকা বেতার ভবন, ঢাকা টেলিভিশন ভবন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, টেলিফোন ভবন, হোটেল ইন্টারকন্টিনেন্টাল, প্রধান বিচারপতি ও মুখ্য সচিবের বাসভবনসহ সমস্ত সরকারি-বেসরকারি ভবন ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আনুষ্ঠানিকভাবে বাংলাদেশের পতাকা তোলা হয়। হোটেল ইন্টারকন্টিনেন্টালে স্বাধীন বাংলার পতাকা তোলার সময় সেনাবাহিনীর সদস্যরা বাধা দিলে ছাত্র-জনতা তা উপেক্ষা করে পতাকা তোলেন।

স্বাধীন বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় ছাত্র সংগ্রাম পরিষদ ও কেন্দ্রীয় শ্রমিক সংগ্রাম পরিষদ আজ ‘প্রতিরোধ দিবস’ পালন করে। এ উপলক্ষে রাজধানীতে গণ-আন্দোলনের প্রবল জোয়ার ওঠে। রাজপথে লাঠি-বর্শা-বন্দুকের মাথায় স্বাধীন বাংলার পতাকা উড়িয়ে হাজার হাজার মানুষ ‘জয় বাংলা’ স্লোগানে সারাদিন রাজধানী প্রকম্পিত করে। জনতা ভুট্টো ও সামরিক বাহিনীর বিরুদ্ধে স্লোগান দেয়। জনতা হোটেল ইন্টারকন্টিনেন্টালের সামনে মোহাম্মদ আলী জিন্নাহর ছবি এবং জুলফিকার আলী ভুট্টো ও জেনারেল ইয়াহিয়া খানের কুশপুত্তলিকা দাহ করে।

কেন্দ্রীয় ছাত্র সংগ্রাম পরিষদ ও প্রাক্তন বাঙালি সৈনিকদের সমন্বয়ে গঠিত ‘জয় বাংলা বাহিনীর’ আনুষ্ঠানিক কুচকাওয়াজ ও মহড়া আউটার স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হয়। কুচকাওয়াজ এবং মহড়া শুরুতে ‘জয় বাংলা’ ধ্বনি এবং সামরিক কায়দায় অভিবাদনের মধ্য দিয়ে স্বাধীন বাংলার পতাকা উত্তোলিত হয়। এ সময় রেকর্ডে ‘আমার সোনার বাংলা আমি তোমায় ভালোবাসি’ গানটি বাজানো হয়।

জয় বাংলা বাহিনীর পাঁচ শতাধিক সদস্য প্যারেড করে বঙ্গবন্ধুর বাসভবনে যান। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবকে তারা সেখানে অভিবাদন জানান। বঙ্গবন্ধু সালাম গ্রহণ শেষে জয় বাংলা বাহিনীর সদস্যদের উদ্দেশে সংক্ষিপ্ত ভাষণে বলেন, ‘বাংলার মানুষ কারো করুণার পাত্র নয়। আপন শক্তির দুর্জয় ক্ষমতা বলেই আপনারা স্বাধীনতা ছিনিয়ে আনবেন। বাংলার জয় অনিবার্য।’

আওয়ামী লীগ নেতা সৈয়দ নজরুল ইসলাম, তাজউদ্দীন আহমেদ ও ড. কামাল হোসেন এদিন প্রেসিডেন্টের উপদেষ্টা বিচারপতি এ আর কর্নেলিয়াস, লে. জেনারেল পীরজাদা, এম এ আহমেদ কর্নেল হাসানের সঙ্গে দুপুর এবং বিকেলে দুই দফায় দুই ঘণ্টা স্থায়ী বৈঠকে মিলিত হন। বিকেলে জাতীয় পশ্চিম পাকিস্তানি পরিষদের সংখ্যাগরিষ্ঠ দলের নেতৃবৃন্দ বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে তার বাসভবনে বৈঠকে মিলিত হন। বৈঠকে কাউন্সিল মুসলিম লীগ প্রধান, জমিয়তে ওলামায়ে প্রধান, পাঞ্জাব কাউন্সিল লীগ প্রধান ও বেলুচিস্তান ন্যাপের সভাপতি উপস্থিত ছিলেন। বৈঠক শেষে পশ্চিম পাকিস্তানি নেতৃবৃন্দ অপেক্ষমাণ সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমরা চাই দেশের মঙ্গলের জন্য সবকিছু খুব তাড়াতাড়ি নিষ্পত্তি হয়ে যাক।’ এ সময় বঙ্গবন্ধু বলেন, ‘আপনারা ভালো কামনা করুন, কিন্তু খারাপের জন্যও প্রস্তুত থাকুন।’

বিকেলে রংপুরের সৈয়দপুরে সেনাবাহিনী ও গ্রামবাসীদের মধ্যে সংঘর্ষে বেশ কয়েকজন হতাহত হয়। সন্ধ্যায় সেনাবাহিনী জোরপূর্বক সৈয়দপুর শহরের কর্তৃত্ব গ্রহণ করে কারফিউ জারি করে। প্রেসিডেন্ট ইয়াহিয়া খান প্রেসিডেন্ট ভবন থেকে সেনানিবাসে গিয়ে সেনা কর্মকর্তাদের সাথে বৈঠক করেন এবং সৈনিকদের উদ্দেশে ভাষণ দেন।

আরও পড়ুন
জাতীয় বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
  • বিকাশের ভুলের মাসুল দিচ্ছেন ৫১৬০ ভাতাভোগী

  • মসজিদে বেশি সময় ব্যয় করার প্রতিদান

  • আফগানিস্তানে মেয়েদের জন্য স্কুল খুলে দিতে ইউনেস্কোর আহ্বান

  • ‘গলুই’ শুটিং শুরু পরশু
    যুক্ত হলেন আলীরাজ-আজিজুল হাকিম ও সূচরিতা

  • ‘আমি মারা যাওয়ার আগে কেউ বিসিবি প্রেসিডেন্ট হতে চাইবে না’

  • জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবিলায় প্রধানমন্ত্রীর ৬ সুপারিশ

  • জাতিসংঘের এসডিজি অগ্রগতি পুরস্কার পেলেন প্রধানমন্ত্রী

  • খুলনায় লবণাক্ত জমিতে তরমুজের ব্যাপক ফলন

  • আন্তর্জাতিক অ্যাওয়ার্ড পেলেন বাংলাদেশি তরুণী ফাইরুজ

  • শান্তিতে ভারত পাকিস্তানের চেয়ে এগিয়ে বাংলাদেশ

  • দুর্গাপূজা উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর ৩ কোটি টাকার অনুদান

  • এক যুগে দক্ষিণাঞ্চলে আমূল পরিবর্তণ

  • ৪২ পণ্য রপ্তানিতে মিলবে নগদ সহায়তা

  • ‘শিগগিরই দেশে দীর্ঘমেয়াদি অর্থায়নের প্রধান উৎস হবে পুঁজিবাজার’

  • আগামী বছর ১০০ স্কুলে পরীক্ষামূলক পাঠদান

  • জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মেডেল পেলেন নৌবাহিনীর ১১০ জন সদস্য

  • পায়রাবন্দর থেকে রাজস্ব আয় ৩০৪ কোটি টাকা

  • সরকারি ব্যয়ে বড় সাশ্রয়

  • এমপিওভুক্ত হলেন ডিগ্রি কলেজের ৮৪১ তৃতীয় শিক্ষক

  • দেশে করোনায় মৃত্যু কমেছে

  • জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবিলায় বাংলাদেশকে সহায়তা বাড়াবে জার্মানি

  • যমুনায় ঐতিহ্যবাহী নৌকা বাইচ, এলাকাজুড়ে উৎসব

  • এক হাত নিয়েই জীবনযুদ্ধে লড়ছেন সাইফুল 

  • মাইকিং করে বিক্রি হচ্ছে চিংড়ি

  • ফের ভ্যাকসিন রফতানি শুরু করছে ভারত

  • মন্ত্রণালয়ে দুর্নীতি তদন্তে দুদককে আহ্বান জানালেন সেতুমন্ত্রী

  • ‘সুষ্ঠু ব্যবস্থাপনার জন্য করোনা ভয়াবহ রূপ নিতে পারেনি’

  • ‘স্বচ্ছ থাকলে সাংবাদিক নেতাদের উদ্বিগ্ন হওয়ার কারণ নেই’

  • ‘শ্রেণিকক্ষের পাশাপাশি অনলাইনে পাঠদান চলমান থাকবে’

  • প্রথমবারের মতো বাংলাদেশে ভ্যাট দিলো মাইক্রোসফট

  • পোশাক রপ্তানিতে ভিয়েতনামকে ছাড়াল বাংলাদেশ

  • ‘২০২৪ সালের মধ্যে দেশে হুন্দাইয়ের গাড়ি তৈরি হবে’

  • সৌরবিদ্যুৎ উৎপাদনের কেন্দ্রস্থল হতে যাচ্ছে উত্তরাঞ্চল

  • ২৪ কোটি টিকা লাইন-আপে রয়েছে: ড. মোমেন

  • জন্মসনদ দিয়েও টিকার নিবন্ধন করা যাবে: শিক্ষামন্ত্রী

  • দুর্নীতিতে জিরো টলারেন্স চান প্রধানমন্ত্রী

  • রূপপুরে চলতি মাসেই নিউক্লিয়ার চুল্লি স্থাপন

  • ‘১৬ কোটি মানুষের বাসস্থান-খাদ্য নিশ্চিত করেছে সরকার’

  • এনআইডি না থাকলেও যেভাবে পাবেন করোনার টিকা

  • মুন্সিগঞ্জের বাঁশ-বেতের পণ্য যাচ্ছে বিদেশে

  • আড়াই ফুটের গলি এখন ৬০ ফুট প্রশস্ত সড়ক

  • জ্বালানি তেল খালাসে নতুন যুগে বাংলাদেশ

  • রপ্তানির নতুন দিগন্ত ইউরেশিয়া

  • নিকলী হাওড়ে পর্যটক নৌযানে লাইফ জ্যাকেট বাধ্যতামূলক

  • দ্বীপ রাঙ্গাবালীতে আলোর ঝলকানি

  • টিউলিপ রেজওয়ানা সিদ্দিক, শুভ জন্মদিন

  • মহেশখালীতে ৪শ’ কোটি টাকার বিদ্যুৎ হাব

  • ৩ হাজার কনস্টেবল নিয়োগ: আবেদন করবেন যেভাবে

  • প্রথম বক্তব্যে প্রশংসায় ভাসছেন সিলেটের এমপি হাবিব

  • মাসে কোটির বেশি টিকা পাওয়ার ব্যবস্থা হয়েছে: প্রধানমন্ত্রী

  • ১৫ ফুটের চিচিঙ্গা

  • জাতিসংঘে শেখ হাসিনার ভাষণ ২৪ সেপ্টেম্বর

  • স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

  • ‘ডিসেম্বরের মধ্যে চীন থেকে আসবে ৬ কোটি ডোজ টিকা’

  • নতুন ক্ষমতা পেলেন প্রতিমন্ত্রীরা

  • বাইডেনের সম্মেলনে শেখ হাসিনার ৬ প্রস্তাব

  • আশা জাগাচ্ছে বঙ্গবন্ধু সাফারি পার্কের নীলগাই

  • ৮৫ হাজার কারাবন্দিকে টিকা দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু

  • ভারত থেকে এলো উপহারের আরও ২৯ অ্যাম্বুলেন্স

  • হেলিকপ্টারে গিয়ে দেওয়া হলো দ্বিতীয় ডোজ টিকা