মঙ্গলবার   ১৮ মে ২০২১

সর্বশেষ:
সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোর বার্ষিক ছুটি ৭৫ দিন আগামী মার্চে ঢাকা উত্তর সিটির ভোটের ইঙ্গিত সিইসির আস্থা ভোটে টিকে গেলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় পরিদর্শনে প্রধানমন্ত্রী রাষ্ট্রপতির সঙ্গে নেপালের বিদায়ী রাষ্ট্রদূতের সাক্ষাৎ সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে ইসি প্রতিজ্ঞাবদ্ধ: নূরুল হুদা বারবার আসতে পারব না, যত খুশি সাজা দিন: খালেদা জিয়া ‘আকাশবীণার’ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী ত্রিভুবনে আবারও বিমান দুর্ঘটনা ট্রেন-বাসের সংঘর্ষে নিহত ২, আহত ২৫ ভুয়া ছবি দিয়ে অপপ্রচার চালাচ্ছে মিয়ানমার: প্রধানমন্ত্রী
৭৮

১৭২ কোটি ব্যয়ে বিষমুক্ত সবজি উৎপাদনে বিপ্লব

ডেস্ক রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১০ এপ্রিল ২০২১  

বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলার দেউলী ইউনিয়নে ১০০ একর জমিতে বিষমুক্ত সবজি উৎপাদন করছেন কৃষকরা। বিষমুক্ত সবজি উৎপাদনের মডেল হিসেবে কৃষি বিভাগ এখানে ৫০০ জন কৃষককে নিয়ে প্রাথমিক যাত্রা শুরু করে। তাদের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষ করে তুলে বিষমুক্ত সবজি উৎপাদন বাড়িয়ে স্থানীয় চাহিদা পূরণ ও দেশের বাইরে রফতানি করার লক্ষ্য রয়েছে কৃষি বিভাগের।

বিষমুক্ত সবজি উৎপাদনের লক্ষ্যে কৃষি বিভাগ বীজ, সার ও প্রশিক্ষণ দিয়ে সহায়তা করছে। এ পদ্ধতিতে এরই মধ্যে কৃষকরা সুফল পাচ্ছেন। বলছেন, কীটনাশক, রাসায়নিক সারের বদলে জৈবিক পদ্ধতিতে চাষ করায় খরচ কমেছে। ফসলের মান ও ফলন বেড়েছে।

কৃষকদের এমন কাজে উদ্বুদ্ধ করতে এ প্রকল্পের নাম ‘পরিবেশবান্ধব কৌশলের মাধ্যমে নিরাপদ ফসল উৎপাদন’। এর আওতায় বগুড়ায় নেয়া হয়েছে সমন্বিত বালাই ব্যবস্থাপনা (আইপিএম) মডেল ইউনিয়ন গঠন কর্মসূচি। এ প্রকল্প শুধু বগুড়ায় নয়, দেশের আরো নয়টি জেলার একটি করে ইউনিয়নে বাস্তবায়ন হচ্ছে।

প্রকল্পে সারা দেশে ব্যয় হচ্ছে ১৭২ কোটি ১৩ লাখ টাকা। কৃষি মন্ত্রণালয়ের আওতায় কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতর প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করছে। ২০২৩ সালের ৩০ জুনের মধ্যে প্রকল্পটির কাজ শেষ হবে।

শিবগঞ্জ উপজেলা কৃষি অফিস জানায়, প্রকল্পটির আওতায় ২০২০-২১ অর্থবছরে দেউলী ইউনিয়নে ৫০০ জন কৃষককে সমন্বিত বালাই দমন ব্যবস্থাপনায় (আইপিএম) প্রশিক্ষিত করা হচ্ছে। রবি মৌসুম থেকে শুরু হয়ে খরিপ-১ পর্যন্ত এই ইউনিয়নের কৃষকদের নিয়ে প্রকল্প কার্যক্রম চলবে।

দেউলী ইউনিয়নে মাঠপর্যায়ে তিনজন উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তাকে সংযুক্ত করা হয়েছে। তারা হলেন- সাইফুর রহমান, মাহমুদুল হাসান ও রাকিব হাসান।

তাদের কাছে জানা যায় মডেল ইউনিয়ন গঠন কার্যক্রম সম্পর্কে। প্রকল্পটির পুরো কার্যক্রম সাতটি সেশনে ভাগ করা হয়। প্রথম দুই সেশনে দল গঠন ও পরিকল্পনা করা হয়। আইপিএম মডেল ইউনিয়নে ২০টি দল তৈরি করে কৃষি অফিস। প্রতি দলে রয়েছেন ২৫ জন কৃষক। আর প্রতি দলের জন্য ৫ একরের একটি করে প্রদর্শনী প্লট তৈরি করা হয়। বাকি ৫টি সেশনে কৃষকদের দেয়া হয় প্রশিক্ষণ। রবি মৌসুমে তিনটি এবং খরিপ মৌসুমে দুটি প্রশিক্ষণ। এরপর কৃষকদের সবজি উৎপাদনের জন্য কৃষি কর্মকর্তারা দেন জৈব সার, বীজ, বালাই নাশক উপকরণ এবং সবজি চাষে নির্দেশনা।

কৃষি অফিস সূত্র জানায়, কৃষক প্রতি এক হাজার টাকার বীজ ও দুই মৌসুমে ১০০ কেজি জৈব সার দেয়া হয়। ফসলের জন্য প্রয়োজনীয় বালাই নাশক (ফেরোমন ফাঁদ, লিউর, পট, হলুদ আঠালো ফাঁদ, নেট) সরকারিভাবে সরবরাহ করা হয়। এছাড়া উঠান বৈঠকসহ বিভিন্ন সময়ে মিটিং, সেমিনারে তাদের ২০০-৪০০ টাকা করে সম্মানি ভাতা দেয়া হয়।

প্রকল্পের রবি মৌসুম শেষ হয়েছে। এখন খরিপ-১ মৌসুম চলছে। জানা যায়, এরই মধ্যে কৃষকরা অনেক উৎসাহী হয়ে উঠেছেন। জৈবিক পদ্ধতিতে বালাই দমনে তারা অভ্যস্ত হয়েছেন।

কৃষকরা বলছেন, ২৫ কেজির এক বস্তা ইউরিয়া সার কিনতে খরচ হয় প্রায় ৮০০ টাকা। অথচ ২৫০ টাকার জৈব সার দিয়ে একই পরিমাণ জমিতে চাষ করা যায়। এতে ফসলের ভালো ফলনও হয়।

২০০৯ সাল থেকে কৃষি কাজে জড়িত দেউলী ইউনিয়নের লক্ষ্মীকোলা গ্রামের শাহীন আজাদ। ১৮ বিঘা জমিতে প্রায় সব ধরনের ফসল আবাদ করেন তিনি। তিন বছর আগে কৃষি অফিসের কর্মকর্তাদের কাছ থেকে আইপিএম পদ্ধতির কথা শোনেন। তখন থেকেই তাদের সঙ্গে যুক্ত হন তিনি।

শাহীন বলেন, এর ফলাফলও হাতে পাই। ১০ শতক জমিতে আগে মিষ্টি কুমড়া চাষ করেছিলাম। কিন্তু মাছি পোকার আক্রমণে কুমড়া পেয়েছিলাম মাত্র ১০-১৫টি। কীটনাশক দিয়েও কাজ হতো না। এবার আইপিএম পদ্ধতিতে চাষ করে একই জমিতে মিষ্টি কুমড়ার ফলন হয়েছে কয়েকগুণ, প্রায় প্রতিটি ফুলেই কুমড়া ধরেছে।

তিনি আরো বলেন, একই পদ্ধতিতে আমি আলু চাষ করেছিলাম। ফলন দেখে অন্য চাষিরা বীজ নেয়ার জন্য বায়না দিচ্ছেন।

লক্ষ্মীকোলা গ্রামের আব্দুল বাছেদ আইপিএম মডেলের প্রদর্শনী প্লটে ১২ শতকে ঝিঙা ও ১৫ শতকে মিষ্টি কুমড়া চাষ করছেন। রবি মৌসুমে করেছেন ফুলকপি চাষ।

বাছেদ জানান, কৃষি অফিস থেকে নতুন পদ্ধতির কথা জানালে আগ্রহী হই। তাদের কথামতো সবজি চাষ করি। কোন কীটনাশক, রাসায়নিক সার দেইনি। কিন্তু ফলনে কোনো কমতি নেই। বরং সবজির মান আগের থেকে বেশি ভালো হয়েছে। আর এভাবে চাষ করায় আমরা মানুষকে বিষমুক্ত সবজি দিতে পারছি।

আইপিএম মডেল পদ্ধতি ব্যবহারকারী কৃষক বাদশা বলেন, এ পদ্ধতির সবচেয়ে ভালো দিক কম খরচে নিরাপদ সবজি উৎপাদন করা যাচ্ছে। রাসায়নিক সার ও কীটনাশক ব্যবহারের কুফল আগে বুঝতাম না। এখন বুঝি। এজন্য অন্যান্য ফসলেও এই পদ্ধতি ব্যবহার করার কথা ভাবছি। 

সম্প্রতি সরেজমিনে দেখা যায়, লক্ষ্মীকোলা গ্রামের দহপাড়া এলাকায় পাঁচ একর জমির একটি প্রদর্শনী প্লট করা হয়েছে। প্লটে খরিপ-১ মৌসুমের বেগুন, মিষ্টি কুমড়া, ঝিঙা চাষ হচ্ছে। পুরো প্লটে নির্দিষ্ট দূরত্বে ফেরোমন ফাঁদের বয়াম রয়েছে। এরমধ্যে দেয়া আছে লিউর। লিউরে স্ত্রী পোকার গন্ধে পুরুষ পোকা আকর্ষিত হয়। আরো রয়েছে হলুদ আঠালো ফাঁদ (স্টিকি রাব)। এতে পোকাগুলো আঠায় আটকে যায়। এছাড়া একটি নেট দিয়ে ঘিরে রাখা হয়েছে বেগুনের ক্ষেত। জমির পাশেই একটি বাড়ির উঠানে এই কৃষকদের নিয়ে কৃষি কর্মকর্তারা আলোচনা করেন। তাদের সমস্যা শুনে প্রয়োজনীয় পরামর্শ দেন।

তবে কৃষকদের জৈবিক পদ্ধতিতে বিষমুক্ত সবজি চাষে উদ্বুদ্ধ করানো একেবারে সহজ নয়। উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তা সাইফুর রহমান বলেন, কৃষকরা সব সময় ম্যাজিক চান। তারা মনে করেন জমিতে কিছু দেয়ার সঙ্গে সঙ্গে কাজ হওয়া লাগবে। ভালো বিষয় এই যে, তারা সেই ভাবনা থেকে বের হয়ে আসছেন।

আরেক কর্মকর্তা মাহমুদ হাসান বলেন, বিষমুক্ত সবজি উৎপাদনে প্রথমেই শতভাগ সফল হওয়া কষ্টকর। তবে বেশিরভাগ কৃষক নিরাপদ সবজি উৎপাদনে আগ্রহী হয়ে উঠেছেন।

শিবগঞ্জ উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা আল মুজাহিদ সরকার বলেন, এখন এসব একটু স্বপ্নের মতো মনে হচ্ছে। পরিবেশবান্ধব কৌশল ব্যবহার করে উৎপাদিত বিষমুক্ত সবজির ভালো দাম পেলেই কৃষকরা নিজে থেকে আগ্রহী হয়ে উঠবেন।

তিনি জানান, এরই মধ্যে বিষমুক্ত ২৫০ কেজি মিষ্টি কুমড়া মালয়েশিয়ায় পাঠানো হয়েছে। কৃষকরা জৈবিক পদ্ধতিতে চাষে অভ্যস্ত হয়ে উঠেছে। এখন বিষমুক্ত সবজি চাষ কৃষকের কাছে গ্রহণযোগ্য করতে হবে।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা আরো বলেন, আমরা বিষমুক্ত সবজির জন্য তাদের কৃষি প্রত্যয়নপত্র দেব। এছাড়া প্রকল্প থেকে ভালো একটি মার্কেটিং চ্যানেল গড়ে তোলার চেষ্টা করছি।

আরও পড়ুন
জাতীয় বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
  • ডিএসইর লেনদেন ১৫০০ কোটি টাকা ছাড়ালো

  • শেখ হাসিনা বাংলাদেশের জন্য অপরিহার্য: নাছিম

  • দূরপাল্লার যানবাহন চালুর বিষয়ে সিদ্ধান্ত সপ্তাহখানেক পর

  • দূরপাল্লার যানবাহন বন্ধ রাখতে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর প্রস্তাব

  • চারদিন পর আখাউড়া স্থলবন্দরে রপ্তানি শুরু

  • বঙ্গবন্ধুর নামে পিরোজপুরে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

  • শিক্ষার্থীদের ভ্যাকসিন নিশ্চিতের পর খুলবে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান

  • চার দশক ধরে আ.লীগের সফল নেতৃত্বে শেখ হাসিনা

  • পারমাণবিক বোমা ছাড়া সব সূচকে পাকিস্তানের চেয়ে এগিয়ে বাংলাদেশ

  • সাগরে বসেই অনলাইনে মাছ বিক্রি করছেন জেলেরা

  • রাজনীতির সীমানা পেরিয়ে শেখ হাসিনা কালজয়ী রাষ্ট্রনায়ক

  • ফেরিতে গাদাগাদি, হিমশিমে বিআইডব্লিউটিসি

  • দেশে চীনের ‘সিনোফার্ম’ টিকা উৎপাদনে কাউকে অনুমতি দেয়া হয়নি

  • শেখ হাসিনা ফেরায় দেশের অগ্রযাত্রা হয়েছে

  • ইসরায়েলের নৃশংসতা অতীতের সকল বর্বরতাকে ছাড়িয়ে গেছে: তথ্যমন্ত্রী

  • শেখ হাসিনার প্রতি বাংলার জনগণের অসীম আস্থা

  • ফিলিস্তিন ইস্যু সমাধানে নিরাপত্তা পরিষদের প্রতি বাংলাদেশের আহ্বান

  • ঈদের পর প্রথম কার্যদিবসে ঊর্ধ্বমুখী শেয়ারবাজার

  • চট্টগ্রাম বিভাগে করোনায় ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ অব্যাহত

  • ঈদ শেষে রাজধানীতে ফিরছে কর্মমুখী মানুষ

  • লিফট সম্বলিত পাঁচটি ফুটওভার ব্রিজ নির্মিত হবে: মেয়র আতিক

  • খুলনা বিভাগে সরকারি ত্রাণ ও আর্থিক সহায়তা পেল ৯ লাখ পরিবার

  • খাদ্য উৎপাদন বৃদ্ধি করতে সংশ্লিষ্টদের আহ্বান কৃষিমন্ত্রীর

  • শেখ হাসিনার ৪০তম স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আজ

  • ব্যান্ডউইথ রপ্তানিতে সৌদির সাথে সাবমেরিন ক্যাবল কোম্পানির চুক্তি

  • ‘শেখ হাসিনার হাত ধরেই বদলে যাওয়া বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা’

  • শেখ হাসিনার আগমন সমৃদ্ধ বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠায় তাৎপর্যপূর্ণ

  • ফিলিস্তিনে বঙ্গবন্ধুর নামে রোড, শেখ হাসিনার নামে বাড়ি

  • স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস: শেখ হাসিনার সফল নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ

  • বিজ্ঞান চর্চার নিরন্তর সাধক

  • করোনা সংকট জয় করে দেশ উন্নয়নের পথে এগিয়ে যাবে

  • স্বাস্থ্যবিধি মেনে ঈদের পাঁচ জামাত বায়তুল মোকাররমে  

  • লকডাউন আরো সাতদিন বাড়ছে

  • ঈদ কবে, জানা যাবে বুধবার

  • হাওর অঞ্চলে বোরো উৎপাদনে ঝুঁকি কমাবে বিনাধান

  • বুধবারও খোলা থাকবে সরকারি অফিস

  • এসপির ঈদ উপহার-খাবার পেয়ে কাঁদলেন সেই বৃদ্ধা

  • রাশিয়া থেকে আসবে এক কোটি ডোজ ভ্যাকসিন

  • ঢাকায় পৌঁছাল চীনের উপহারের পাঁচ লাখ টিকা

  • চাঁদ দেখা যায়নি, সৌদি আরবে ঈদ বৃহস্পতিবার

  • ঈদে ছুটি নেননি পদ্মাসেতু প্রকল্পের প্রকৌশলী-শ্রমিকরা

  • চীন থেকে আরও ডোজ আনার চেষ্টা চলছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

  • হাওরের শতভাগ বোরো ধান কাটা শেষ: কৃষিমন্ত্রী

  • চীনা রাষ্ট্রদূত আগ বাড়িয়ে কথা বলেছেন: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

  • আল-আকসা মসজিদে হামলায় প্রধানমন্ত্রীর নিন্দা

  • দুধের ভালো দামে চওড়া হাসি খামারিদের মুখে

  • লকডাউন আরো সাতদিন বাড়তে পারে: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

  • দূরপাল্লার বাস চলাচল নিয়ে যা বললেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

  • তিস্তায়ও আগ্রহী চীন

  • ব্রডব্যান্ড সংযোগের আওতায় আসছে সাড়ে ৪ হাজার ইউনিয়ন পরিষদ

  •  ‘যে কোনো দুর্যোগকে আ. লীগ সব সময় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে’

  • করোনা সংকট মোকাবেলায় সরকারের অক্সিজেন প্রস্তুতি

  • জাতীয় সংসদের বাজেট অধিবেশন ২ জুন

  • কনস্টেবলকে সততার পুরস্কার দিলেন এসপি

  • মুঠোফোনে প্রধানমন্ত্রীর ঈদ শুভেচ্ছা

  • স্বপ্নের মেট্রো রেলের সফল পরীক্ষা যাত্রা

  • ঈদের আগে বিকাশ-নগদে ঘণ্টায় ২০০ কোটি টাকার লেনদেন

  • বৃহস্পতিবার থেকে ঈদের ছুটি শুরু, বুধবার শেষ কর্মদিবস

  • বিশ্বের যেকোনো প্রান্ত থেকে এখন বিটিভি দেখা যাবে অ্যাপে

  • লকডাউনে বিচারিক ক্ষমতা পাচ্ছে পুলিশ