সোমবার   ২৬ অক্টোবর ২০২০

সর্বশেষ:
সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোর বার্ষিক ছুটি ৭৫ দিন আগামী মার্চে ঢাকা উত্তর সিটির ভোটের ইঙ্গিত সিইসির আস্থা ভোটে টিকে গেলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় পরিদর্শনে প্রধানমন্ত্রী রাষ্ট্রপতির সঙ্গে নেপালের বিদায়ী রাষ্ট্রদূতের সাক্ষাৎ সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে ইসি প্রতিজ্ঞাবদ্ধ: নূরুল হুদা বারবার আসতে পারব না, যত খুশি সাজা দিন: খালেদা জিয়া ‘আকাশবীণার’ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী ত্রিভুবনে আবারও বিমান দুর্ঘটনা ট্রেন-বাসের সংঘর্ষে নিহত ২, আহত ২৫ ভুয়া ছবি দিয়ে অপপ্রচার চালাচ্ছে মিয়ানমার: প্রধানমন্ত্রী
১১৯

মানুষ যেন ন্যায়বিচার পায়: প্রধানমন্ত্রী

ডেস্ক রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১৭ অক্টোবর ২০২০  

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘মানুষ যেন ন্যায়বিচার পায়। কারো প্রতি যেন কোনো অন্যায়-অবিচার না হয়। মানুষের জীবনমানের যেন উন্নয়ন হয়, সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে। তাহলে প্রত্যেক মানুষ এগিয়ে যাবে এবং এ দেশের মানুষের উন্নতি ঘটবে।’

বৃহস্পতিবার (১৫ অক্টোবর) বেলা ১১টার দিকে গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ৭০তম বুনিয়াদি প্রশিক্ষণ কোর্সের সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী এ কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘জনগণের সেবা করাটাই আমাদের মূল লক্ষ্য। দেশের সম্মানটাকে আবারও ফিরিয়ে আনতে বিভিন্ন পদক্ষেপ নিয়েছি। বিশ্বে আমরা মাথা উঁচু করে বাঁচব। যা আমরা করতে পারছি, সবকিছুর ভিত্তিটা জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান করে গেছেন। আমাদের নিজস্ব একটা প্রশাসন হবে। সেই প্রশাসনের কার্যক্রমও তিনি সৃষ্টি করেছে গেছেন। তাঁর হাত দিয়ে প্রতিটি ক্ষেত্র তিনি তৈরি করে গেছেন। তাঁরই করা ক্ষেত্র অনুসরণ করে আমরা কাজ করার পদক্ষেপ নিচ্ছি।’

শেখ হাসিনা বলেন, ‘স্বাধীনতার পর বঙ্গবন্ধু প্রশাসনিক সংস্কারের মাধ্যমে একটি স্বাধীন দেশ ও সমাজের উপযোগী সিভিল সার্ভিস গঠনের আকাঙ্ক্ষা ব্যক্ত করেছিলেন এবং তিনি পদক্ষেপও নিয়েছেন। বঙ্গবন্ধু অফিসারদের বিভিন্ন দেশে প্রশিক্ষণ দিয়ে নিয়ে আসেন। এ জন্য তিনি ফেলোশিপের ব্যবস্থাও করেছেন। পরে আমরা বঙ্গবন্ধু ফেলোশিপ প্রবর্তন করেছিলাম। দুর্ভাগ্য যে, বিএনপি ক্ষমতায় আসার পর ফেলোশিপ ক্যান্সেল করে দেয়। অনেকে বিপদে পড়ে যায়। অনেককে ফিরে চলে আসতে হয়। ২০০৯ সালে আবারও আমরা বঙ্গবন্ধু ফেলোশিপ প্রবর্তন করি এবং প্রধানমন্ত্রী ফেলোশিপ শুরু করি।’

প্রধানমন্ত্রী আরো বলেন, ‘আজকে যারা নবীন কর্মকর্তা-কর্মচারী প্রশিক্ষণ নিয়েছেন, তাদের মনে রাখতে হবে আজকের যারা গরিব, তারাই এ দেশের মালিক। তাদেরই ঘর থেকে সবাই লেখাপড়া করে শিখে এসেছেন। কাজেই সেদিকে লক্ষ্য রেখে তাদের সেবা করাই আপনাদের দায়িত্ব।’

সরকারপ্রধান বলেন, ‘বুনিয়াদি প্রশিক্ষণ চার মাস। কাজে প্রশিক্ষণের জন্য খুবই কম সময় এটি। তাই আমরা ছয় মাস করে দিয়েছি। লোকপ্রশাসন প্রশিক্ষণ কেন্দ্র প্রসার করার লক্ষ্যে আধুনিক সুন্দর প্রশিক্ষণের ব্যবস্থাসহ কমপ্লেক্স গড়ে তুলছি। এসব পরিবর্তনের সঙ্গে ট্রেনিংটা যেন উন্নত মানের হয়। সুতরাং বিদেশের সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলতে হবে। ট্রেনিং কর্মকর্তারা যেন সারা বিশ্বে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেন।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘সরকারি সবার বেতন আমরা বৃদ্ধি করেছি। কারণ, যারা কাজ করবে, তাদের যদি সংসার চালাতে টানাটানি হয়ে যায়, তাহলে তারা কীভাবে জনগণের সেবা করবে। তাদের থাকার ব্যবস্থা করে দিয়েছি। চিকিৎসাসেবারও ব্যবস্থা করে দিয়েছি।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘বাংলাদেশকে দারিদ্র্যমুক্ত করতে হবে। একজন মানুষও গৃহহীন থাকবে না। কোনো পথশিশু পথে থাকবে না। প্রত্যেক শিশুর পড়ালেখার ব্যবস্থা করে দেয়া হবে। তারা যাতে স্বাবলম্বী হতে পারে, আমাদরে সে ব্যবস্থা করে দিতে হবে। ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ে তুলেছি। এর জন্য ডিজিটাল সেন্টার করে দিয়েছি একেবারে ইউনিয়ন পর্যায় থেকে। তথ্যপ্রযুক্তির মাধ্যমে সংযোগ সৃষ্টির ব্যবস্থা করে দিয়েছি। করোনায় যেখানে বের হতেই পারি না, সেখানে আপনাদের সঙ্গে কথা বলেছি, সেটা এই ডিজিটালাইজেশনের মাধ্যমে।’

শেখ হাসিনা বলেন, ‘খাদ্য, শিক্ষা এবং চিকিৎসা- এই তিনটি নিশ্চিতে কাজ করে যাচ্ছি। গ্রামে কমিউনিটি ক্লিনিক করা হয়েছে। এতে বেশি নারীরা সুবিধা পাচ্ছে। বিভিন্ন জায়গায় ধর্ষণের ঘটনা ঘটছে। এসব যত বেশি প্রচার হয়, তত বেশি প্রাদুর্ভাব বাড়ে। এর জন্য আমরা আইন করে দিয়েছি। পাশাপাশি মানুষের মাঝে জনসচেতনতা সৃষ্টি করা দরকার।’

সরকারপ্রধান বলেন, ‘বাংলাদেশ একটি ব-দ্বীপ। সে ক্ষেত্রে আমাদের ব-দ্বীপ অঞ্চলকে রক্ষা করতে হবে। আমাদের অধিকাংশ অঞ্চল ভূমিকম্পপ্রবণ এলাকা। কাজেই যেসব জমি দখল হয়ে গেছে, খাল-বিল দখল হয়ে গেছে, সেগুলো অপসারণের ব্যবস্থা করছি। সড়কপথে আমরা ব্যাপক উন্নতি করেছি। বাংলাদেশকে উন্নত দেশে পরিণত করতে চাই।’

বুনিয়াদি প্রশিক্ষণপ্রাপ্তদের উদ্দেশে শেখ হাসিনা বলেন, ‘আপনারাই এ দেশের ভবিষ্যৎ। আপনারা এ দেশের সৈনিক। এ দেশকে গড়ে নিয়ে যাবেন আপনারাই। সুনির্দিষ্ট লক্ষ্য না থাকলে কোনো দেশ এগোতে পারে না। তাই দরকার নির্দিষ্ট লক্ষ্য। এই লক্ষ্য নিয়েই আমরা সামনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছি।’

জাতীয় বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
  • সেনাপ্রধানের ফেসবুক অ্যাকাউন্ট নেই: আইএসপিআর

  • দুর্নীতির বিরুদ্ধে রিপোর্ট সরকারকে ব্যবস্থা নিতে সহায়তা করে

  • ‌‘দুর্নীতির বীজ বপন করে গেছে ৭৫ পরবর্তী অবৈধ সরকারগুলো’

  • দক্ষিণ এশিয়ার নতুন ধনী ‘বাংলাদেশ’

  • নারীর নিরাপত্তা নিশ্চিতে সচেষ্ট বাংলাদেশ

  • ব্যবসার প্রসারে বড় ভূমিকা রাখবে প্রযুক্তি

  • পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের প্রথম চুল্লি দেশে

  • এগিয়ে চলছে মেট্রোরেল

  • সরকারি পরিষেবার অর্থ জমা উন্মুক্ত হচ্ছে সব ব্যাংকে

  • দু-তিন বছরে সড়কে বৈপ্লবিক পরিবর্তন আসবে

  • ৪০০ কুমির রপ্তানি করবে বাংলাদেশ

  • ঘুরে দাঁড়াচ্ছে পর্যটন খাত

  • ‘তলাবিহীন ঝুড়ি’ থেকে শক্তিশালী অর্থনীতির দেশ বাংলাদেশ

  • বদলে যাচ্ছে পিছিয়ে পড়া অঞ্চলের শিক্ষার চিত্র

  • নকিয়া বাংলাদেশে কারখানা স্থাপন করতে আগ্রহী

  • করোনাকালে ক্ষুদ্র শিল্পকে বাঁচাতে এগিয়ে এসেছে সরকার

  • পদ্মা সেতুর ৫ কিলোমিটারের বেশি দৃশ্যমান

  • দক্ষিণ এশিয়ার অর্থনীতিতে নতুন নেতা হতে যাচ্ছে বাংলাদেশ

  • জাতীয় গো-প্রজনন কেন্দ্রে চার দশকে উৎপাদন ১৪ লাখ গরু

  • তাঁতিদের দক্ষতা বৃদ্ধিতে হচ্ছে ফ্যাশন ডিজাইন ইনস্টিটিউট

  • অঞ্চলভিত্তিক পেঁয়াজ চাষ করবে সরকার

  • টিকা কিনতে বিশেষ উদ্যোগ নিয়েছে বাংলাদেশ

  • এবার শীতের তীব্রতা কম হবে

  • ২০৩০ সালের মধ্যে সড়কে মৃত্যু ৫০ শতাংশ কমানো হবে

  • ‘দুই-তিন বছরে বাংলাদেশের সড়কে বৈপ্লবিক পরিবর্তন হবে’

  • ‘২০৩০ সালের মধ্যে ছয় লেনের মেট্রোরেল নির্মাণের পরিকল্পনা সরকারের’

  • ‘ফ্রান্স-বাংলাদেশে বিনিয়োগ বাড়াতে কাজ করা হচ্ছে’

  • ভাল ফলন ও দাম পাচ্ছেন লেবু চাষিরা

  • বাজার সিন্ডিকেট ভাঙতে সরকার কাজ করছে

  • করোনাকালেও থেমে নেই কৃষকের উৎপাদন

  • নিউইয়র্কের সর্বোচ্চ সম্মাননা পেলেন বিশ্বের সবচেয়ে খুদে বিজ্ঞানী

  • মুক্তিযোদ্ধা ভাতা বাড়িয়ে ২০ হাজার করার প্রস্তাব

  • জিডিপিতে ১.২ শতাংশ প্রবৃদ্ধি আনবে পদ্মা সেতু: চীন

  • মাটির নিচ দিয়ে তার নেওয়া শুরু হবে সোমবার: তাপস

  • পদ্মায় বসলো ৩৩তম স্প্যান, দৃশ্যমান ৫ কিলোমিটার 

  • দক্ষিণ এশিয়ার নতুন অর্থনৈতিক নেতা বাংলাদেশ: দ্য ডিপ্লোম্যাট

  • সামুদ্রিক মাছ ‘বাংলাদেশিয়াস’ বৈশ্বিক তালিকায় অন্তর্ভুক্ত

  • পার্বত্য চট্টগ্রামের ২৮টি পাড়াকেন্দ্র ডিজিটাল হচ্ছে

  • বদলে যাচ্ছে ঢাকাসহ সব বিমানবন্দরের চেহারা

  • টিসিবি ২৫ টাকায় আলু বিক্রি শুরু করবে বুধবার

  • ‘মাধ্যমিকে বার্ষিক পরীক্ষা ছাড়াই ওপরের ক্লাসে উন্নীত করা হবে’

  • রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের চুল্লি রাশিয়া থেকে দেশে পৌঁছেছে

  • ডিজিটাল মানচিত্রে পোশাক কারখানা

  • জাতীয় গ্রিডে যুক্ত হচ্ছে ১০০ কোটি ঘনফুট গ্যাস

  • স্থানীয় চাহিদা মিটিয়ে বিদেশে আখাউড়ার মাছ

  • উত্তরে দৃশ্যমান মেট্রোরেল

  • দেশের সবচেয়ে বড় সৌর বিদ্যুৎ কেন্দ্রে উৎপাদন শিগগিরই

  • ‘দুই-তিন বছরে বাংলাদেশের সড়কে বৈপ্লবিক পরিবর্তন হবে’

  • নিরাপদ সড়ক নিশ্চিতে সবকিছু করে যাচ্ছে সরকার: প্রধানমন্ত্রী

  • রাজশাহীতে চালু হচ্ছে নৌবন্দর

  • পরিচ্ছন্ন নারায়ণগঞ্জ গড়তে ৩০১ কোটি টাকা

  • এবার গারো পাহাড়ে চা চাষের উদ্যোগ

  • করোনার মধ্যেই ঘুরে দাঁড়িয়েছে বাংলাদেশের অধিকাংশ সূচক

  • নারীদের দক্ষতা বাড়ানোর পরামর্শ

  • সরকারি তৎপরতায় ঘুরে দাঁড়াচ্ছে পোলট্রি শিল্প

  • একনেকে ১৬৬৮ কোটি খরচে ৪ প্রকল্প অনুমোদন

  • ব্যারিস্টার রফিক-উল হকের মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক

  • ওসমানী বিমানবন্দরের আয়তন বাড়ছে তিনগুণ

  • ‘আমরা ভাগ্যবান শেখ হাসিনার মতো একজন দক্ষ নেত্রী পেয়েছি’ 

  • রোহিঙ্গাদের জন্য আরো ৩৫ কোটি ডলার অনুদান ঘোষণা