সোমবার   ২১ অক্টোবর ২০১৯

ব্রেকিং:
সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোর বার্ষিক ছুটি ৭৫ দিন আগামী মার্চে ঢাকা উত্তর সিটির ভোটের ইঙ্গিত সিইসির জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় পরিদর্শনে প্রধানমন্ত্রী আস্থা ভোটে টিকে গেলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে রাষ্ট্রপতির সঙ্গে নেপালের বিদায়ী রাষ্ট্রদূতের সাক্ষাৎ খালেদার অনুপস্থিতিতেই কারাগারে বিচার চলবে রব ও মান্নার বিয়ে যুক্তফ্রন্টে, পরকীয়া ঐক্যফ্রন্টে: মাহী এটা জোট নয়, ঘোট : তথ্যমন্ত্রী যুক্তরাষ্ট্রে রাজনৈতিক আশ্রয় পেলেন সিনহা আবারও সরকার গঠনে নৌকায় ভোট দেয়ার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর পদ্মা সেতু প্রকল্পের নামফলক উন্মোচন করলেন প্রধানমন্ত্রী
১৯৪

বডি শেমিংয়ের বড় শিকার আমাদের সামাজের নারীরা

মারিয়া সালাম

প্রকাশিত: ৩ জুন ২০১৯  

বিদ্যা বালানের ‌‘বডি শেমিং’ এর নতুন ভিডিওটা দেখলাম এইমাত্র। নতুন কিছু নাই, সেই একই পুরানো কথাবার্তা। কিন্তুপ ঘুরে ফিরে এই কথাগুলা বারবার আমাদের বলতেই হবে, তাতে করে যদি আমাদের সমাজের মানুষদের কিছুটা চিন্তার পরিবর্তন হয়।

আমাদের সহজাত স্বভাব হলো মানুষের খুঁত খুঁজে বের করা, কারণ আমরা এমন এক জাতি যারা নিজের দূর্বলতা ঢাকতে অন্যের খামতিকে বড় করে দেখাই। অথচ জীবনে একদিনও চিন্তা করি না, আমাদের নিজেদের কি কি ঘাটতি রয়েছে। কিছু ঘাটতি আমরা চাইলেই খুব সহজে পূরণ করতে পারি, কিন্তু সেটা আমরা করি না। কারণ আমাদের সামনে সহজ পথ খোলা রয়েছে, অন্যের খামতিকে সামনে এনে ওঁতে চলে যাওয়াটাই আমরা সোজা বলে ধরে নি। আমাদের লজ্জা করে না।

আমার প্রথম চাকরির সময় বেশ ঢিলাঢালা অফিস করতাম আমরা, কোন টাইমটেবল নাই। একদিন যুগ্ম সম্পাদক এসে দেখলেন, আমি ছাড়া কেউ নেই অফিসে। উনি আমাকে ডেকে বেশ বকা দিলেন কারণ আমি নিজেও আধাঘন্টা দেরিতে এসেছিলাম ঐদিন। আমার খুব রাগ হলো। বললাম আমিতো তবু এসেছি, যারা আসে নি আপনি তাদের ধরুন। উনি বললেন, মারিয়া কে কি করল, সেটা নিয়ে পড়ে থাকলে তুমি জীবনেও সামনে এগুতে পারবেনা, তোমাকে সবার পিছেই পড়ে থাকতে হবে। মাহমুদ ভাই মারা গেছেন আজ অনেক বছর। কিন্তু আমাকে যে শিক্ষা দিয়ে গেছেন, তার সুফল আমি সবসময় ভোগ করি। ঐদিনের পরে আর কারো দিকে দেখার দরকার হয় নি আমার, আমি নিজের মতো করে নিজের পথে চলেছি।

তবে, হাজার চেষ্টা করেও আমরা অনেকেই একটা বিষয়ে নিজেদের বদলাতে পারি না, তা হলো আমাদের স্বাস্থ্য। আমরা কেউ লম্বা, কেউ খাটো, কেউ মোটা, কেউ পাতলা, কেউ কালো, কেউ ফর্সা। পৃথিবীর কোন মানুষই অন্যকোন মানুষের মতো নয়। সব মানুষ আলাদা। আমি চাইলেই দুইইঞ্চি লম্বা হতে পারবো না বা একজন কালো বা বাদামী চামড়ার মানুষ স্বাভাবিকভাবে রাতারাতি ফর্সা হয়ে যেতে পারবে না। একেক মানুষের শরীরের গড়ন একেক রকম। কেউ হ্যাংলা পাতলা, কেউ বেশ গোলগাল। রাতারাতি চাইলেই সেটা বদলে আমরা হলিউড বা বলিউডের অভিনেতাদের মতো সুন্দর-সুঠাম হয়ে উঠতে পারি না। এই চরম সত্য কথাটা আমরা বুঝে উঠতে পারি না বলেই, অন্যদের নিয়ে বডি শেমিং করি।

বডি শেমিংয়ের বড় শিকার আমাদের সামাজের নারীরা। আমরা লম্বা, ফর্সা আর মোটামুটি মাঝারি গড়নের মেয়েদের সুন্দরী বলে ধরে নিয়েছি। আমাদের তৈরি মাপকাঠির বাইরে একইঞ্চি এদিক সেদিক হলেই সে মেয়ে সুন্দর নয়। এই ধারণা এমনভাবে আমাদের মনেপ্রাণে গেঁথে গিয়েছে, আমরা এই মাপকাঠির বাইরের মেয়ে দেখলেই লেগে পড়ি তার পিছে। আমার নিজেরই হয়তো বিশাল একটা ভুড়ি, আমি অন্য এক জনকে বলে বসি, আল্লাহ তুমি আরো মোটা হয়ে গেছ। বা আমার নিজের গায়ের রঙ মলিন, আমি আরেকজনকে বলি, তুমি তো বেশ কালো হয়ে গেছ।

কেন করি এইসব? উত্তর খুব সহজ, আমরা নিজেদের অতৃপ্তি নিয়েই নিজেদের মধ্যে গুমরে মরি আর স্বভাবজাতভাবেই তা লুকাতে অন্যকে হেয় করি বা অন্যের খামতি সামনে এনে স্বান্তনা নেয়ার চেষ্টা করি।

আমরা মুখে আল্লাহখোদার নাম নিয়ে ফেনা তুলে ফেলি। আমাদের ধারণা পাঁচওয়াক্ত নামাজ, রোজা, পর্দা করা, এই হলেই হবে, আর বাকি কিছুর প্রয়োজন নাই। কিন্তু, সৃষ্টিকর্তার সন্তুষ্টি লাভের পূর্বশর্তই হচ্ছে, তার সৃষ্টিকে ভালোবাসা, সেটা আমরা বুঝি না, মানে ঐটুকু বুঝার মতো আমাদের মানসিক বিকাশ হয় নি।

আমরা বুঝি না, সৃষ্টিকর্তা যাকে যেভাবে বানিয়েছেন, পরম যত্ন করে আর ভালোবাসা দিয়ে বানিয়েছেন। আর যে যেমন, তাকে সেভাবেই দেখাটা আমাদের বন্দনার মধ্যে পড়ে। মানুষের বাহ্যিক সৌন্দর্য্য ধুয়ে পানি খাওয়া কাজের কাজ না, বরং একটা মানুষ আসলেই সেই অর্থে কতোটা মানুষ তা নির্ধারণ করে তার ভেতরের রুপ।

আমরা নিজেদের বাহ্যিক ত্রুটি নিয়ে এতই চিন্তায় থাকি যে আমাদের আত্মবিশ্বাসের মাত্রা থাকে একদম শূন্যের কোটায়। এই অবস্থা নিয়ে আমরা নিজেদের স্বাভাবিক কাজগুলাই ভালোভাবে করতে পারি না, মহৎ কাজ কিভাবে হবে আমাদের দ্বারা? এই হীনমন্যতায় বেশি ভুগে আমাদের নারীরা। কারণ, একজন পুরুষ অন্য পুরুষের শারীরিক সৌন্দর্য্য নিয়ে খুব একটা মাথা ঘামায় না। কিন্তু, নারীর ক্ষেত্রে নারী-পুরুষ উভয়েই এনিয়ে প্রশ্নের পর প্রশ্ন করে যায়।

আমাদের সমাজে পুরুষের চোখে নারী ভোগের বস্তু, ব্যতিক্রম আছে। আর আমরা নারীরা নিজেদের পুরুষের চোখে দেখেই অভ্যস্ত, তাই নিজেরাই সারাদিন নিজেদের বডি শেমিং করে নিজেদের হীনমন্যতা কাটাই।

আমাদের এর থেকে বেড়িয়ে আসতে হবে। মনে রাখতে হবে, মানুষ সৌন্দর্যের পূজারী। কাউকে কাউকে কারো থেকে বেশি সুন্দর লাগতেই পারে বা নিজেকে একটু ভালোভাবে উপস্থাপন করা যেতেই পারে, তাতে দোষের কিছু নাই। বা সুস্থতার জন্য নিয়মিত কিছু শরীর চর্চা করা উচিত সবার, তারমানে এই না যে আমাকে সবসময় ক্যাটরিনা কাইফের মতো দেখতে লাগবে। আমিও স্বাভাবিক মানুষ, আমারও বয়স হবে, বয়স আর পরিস্থিতির পরিবর্তনের সাথে আমারও পরিবর্তন হবে। তাতে চিন্তারও কিছু নাই বা অন্যকে বাজে দেখতে লাগছে বলে আত্মতৃপ্তিরও কিছু নাই।

মূল বিষয় হচ্ছে শারীরিক আর মানসিকভাবে সুস্থ থাকা। নিজের কাজ সুন্দরমতো সম্পন্ন করা। কে দেখতে কেমন তা দিয়ে কী হয়? নিজেদের ভোগের সামগ্রী না ভেবে আমাদের উচিত, সৃষ্টিশীল কাজে মন দেয়া। নিজেরা হীনমন্যতা থেকে বের হয়ে উৎপাদন বৃদ্ধি করি আর অন্যদের ছোট না করি,সেটাই আমাদের জন্য মঙ্গল বয়ে আনবে।

লেখক: গণমাধ্যমকর্মী

মতামত বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
  • ২৮৪ কোটি টাকা ব্যয়ে ঝুঁকিপূর্ণ শিশুশ্রম নিরসন প্রকল্প গ্রহণ 

  • ‘চরের মানুষ পাকা রাস্তা,পড়ালেখার জন্য স্কুল-মাদ্রাসা পেয়েছে’

  • ‘সাড়ে ২২ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন হচ্ছে’

  • দেশকে শীর্ষ পঞ্চাশে নেওয়ার লক্ষ্য জয়ের

  • অনলাইনে সরকারি সেবা দিতে ‘একপে’, ‘একসেবা’ ও ‘একশপ’-এর যাত্রা শুরু

  • আপনার সন্তান খায় না, তাহলে এভাবে দিন

  • বিরতিহীন দীর্ঘতম বিমান যাত্রায় ফ্লাইট সিডনিতে পৌঁছেছে

  • ‘গণতন্ত্রকে খুন করেছে মমতা’

  • কনের আত্মীয়রা মল মূত্র খাওয়ালো বরের পিতাকে

  • আটক ইসরাইলি সেনাদের বিষয়ে হামাসের ভিডিও বার্তা

  • কুর্দি এলাকায় সিরীয় সেনা মানে যুদ্ধ: তুরস্ক

  • এক অন্য রকম শিক্ষকের গল্প

  • নেতার অভাবেই ক্ষমতায় মোদি: অভিজিৎ

  • বড় সিরীয় ঘাঁটি ছাড়ল যুক্তরাষ্ট্র

  • ভারতের হামলায় পাকিস্তানের ১০ সেনা নিহত

  • বিশ্বে প্রথমবার ড্রোনে পণ্য ডেলিভারি

  • কানাডার জাতীয় নির্বাচন আজ

  • কাশ্মীর নিয়ে কথা বলায় তুরস্ক সফর বাতিল মোদির

  • সিংড়ায় বোনকে তালাক দেয়ায় দুলাভাইকে পিটিয়ে জখম

  • হাইডেলবার্গ বিশ্ববিদ্যালয়ে ফের চালু হচ্ছে ‘বঙ্গবন্ধু চেয়ার’

  • আল-আকসায় ফের শত শত কট্টরপন্থী ইহুদির অনুপ্রবেশ

  • মেহেরপুরে যৌন উত্তেজক সিরাপ তৈরির কারখানার সন্ধান

  • লক্ষ্মীপুরে ছাত্রলীগ নেতার ওপর হামলা

  • টিউবওয়েলে দেশলাই ধরলেই আগুন!

  • সেই কলেজছাত্রীকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে হত্যার অভিযোগ

  • যুবরাজ শয়তানের ঘনিষ্ঠ: সৌদির শীর্ষ আলেম

  • প্রবাসী স্বামীর প্রতি গৃহবধূর ভালোবাসার অনন্য দৃষ্টান্ত

  • মালদ্বীপের জালে বাংলাদেশের ৬ গোল

  • উত্ত্যক্তের কারণে ছাত্রীর কলেজ যেতে ভয়

  • ডিএনসিসির কাউন্সিলর রাজীবকে ১৪ দিনের রিমান্ড

  • আজ ‘কুড়িগ্রাম এক্সপ্রেস’ ও ১৩টি সেতু উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী

  • ১৪ হাজার মুক্তিযোদ্ধাকে পাকা বাড়ি দেওয়া হবে: মোজাম্মেল হক

  • মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষায় দেশসেরা রংপুরের রাগীব নূর

  • পাতাল মেট্রোরেলে বদলে যাবে ঢাকা শহর

  • বাংলাদেশের প্রথম তৃতীয় লিঙ্গের ভাইস চেয়ারম্যান পিংকী

  • ২০১৯ সালে বিশ্বে তৃতীয় সর্বোচ্চ প্রবৃদ্ধি বাংলাদেশে: আইএমএফ

  • বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত ১৫৭ পরিবার পেল অর্থ সহায়তা ও বীজ

  • অর্থনীতিকে এগিয়ে নেবে উদ্ভাবনী প্রযুক্তি: মোমেন

  • পর্যটন শিল্প বিকাশে অবদান রাখবে পটিয়া বাইপাস সড়ক

  • ভুলতা উড়ালসড়কের উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী

  • আগামী প্রজন্মকে পরিচ্ছন্ন হয়ে ওঠার আহ্বান স্থানীয় সরকারমন্ত্রীর

  • দ্রুত এগুচ্ছে ৬ লেনের মাতামুহুরী সেতুর নির্মাণকাজ

  • ‘সবচেয়ে সুবিধাজনক অবস্থায় বাংলাদেশের অর্থনীতি’

  • প্রকাশ পেল ‌‌‘আহাদ ফাহিম’ এর গান ‘আমি মিথ্যে বলিনি’ এর ভিডিও

  • সরকারি উদ্যোগে সব উপজেলায় গঠন হচ্ছে কিশোর-কিশোরী ক্লাব

  • যানজট নিরসনে ঢাকায় আরও ২টি মেট্রোরেলের প্রকল্প অনুমোদন

  • মুসলিমবান্ধব পর্যটন বিকাশে বাংলাদেশ আদর্শ: পর্যটন প্রতিমন্ত্রী

  • আবরারকে পিটিয়ে হত্যার কারণ জানালেন ডিএমপি

  • নকল জুস তৈরির কারখানায় অভিযান, ৪০ হাজার টাকা জরিমানা 

  • মুন্সিগঞ্জের ১৩ সেতুর উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী

  • প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশের ভাষা আমার নেই: আবরারের মা

  • শুধু উন্নয়ন নয়,দেশ এখন দুর্যোগ মোকাবেলাতেও রোল মডেল:প্রধানমন্ত্রী

  • সেনাপ্রধান কাতার যাচ্ছেন মঙ্গলবার

  • ‘‌আমাকে কবর থেকে বের করো, এখানে ভীষণ অন্ধকার’‌

  • এক বাঘিনীর জন্য দুই বাঘের তুমুল লড়াই

  • হাওরের ৩ উপজেলায় রেসিডিন্সিয়াল স্কুল-কলেজ হবে: রাষ্ট্রপতি

  • জেরুজালেমের গভর্নরকে তুলে নিয়ে গেল ইসরাইল

  • যুগোপযোগী সিলেবাস প্রণয়ন করা হবেঃ শিক্ষা উপমন্ত্রী

  • ‘সুন্দরবনকে অক্ষত রেখেই মোংলা ইকোনমিক জোনের কাজ শুরু হয়েছে’

  • এবার ভেঙে ফেলা হচ্ছে রাজমনি সিনেমা হল