রোববার   ০১ আগস্ট ২০২১

সর্বশেষ:
সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোর বার্ষিক ছুটি ৭৫ দিন আগামী মার্চে ঢাকা উত্তর সিটির ভোটের ইঙ্গিত সিইসির আস্থা ভোটে টিকে গেলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় পরিদর্শনে প্রধানমন্ত্রী রাষ্ট্রপতির সঙ্গে নেপালের বিদায়ী রাষ্ট্রদূতের সাক্ষাৎ সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে ইসি প্রতিজ্ঞাবদ্ধ: নূরুল হুদা বারবার আসতে পারব না, যত খুশি সাজা দিন: খালেদা জিয়া ‘আকাশবীণার’ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী ত্রিভুবনে আবারও বিমান দুর্ঘটনা ট্রেন-বাসের সংঘর্ষে নিহত ২, আহত ২৫ ভুয়া ছবি দিয়ে অপপ্রচার চালাচ্ছে মিয়ানমার: প্রধানমন্ত্রী
৫২

জিলহজ মাসের ১৩ দিনের বিশেষ আমল

ডেস্ক রিপোর্ট:

প্রকাশিত: ১২ জুলাই ২০২১  

আরবি ১২ মাসের সর্বশেষ মাস জিলহজ। এ মাসের প্রথম ১৩ দিনের বিশেষ আমল কোরআন-হাদিসে বর্ণিত আছে। যার সংক্ষিপ্ত বিবরণ এখানে উল্লেখ করা হলো—

হজ করা: জিলহজ মাসের গুরুত্বপূর্ণ একটি আমল হজ। হজ ইসলামের মৌলিক পাঁচ স্তম্ভের একটি। এর মূল কাজগুলো ৮ জিলহজ থেকে ১২ জিলহজের মধ্যে সম্পন্ন করতে হয়। হজ সামর্থ্যবানদের ওপর জীবনে একবার ফরজ হয়। ইরশাদ হয়েছে, ‘মানুষের মধ্যে যার সেখানে যাওয়ার সামর্থ্য আছে, আল্লাহর উদ্দেশ্যে ওই গৃহের হজ করা তার জন্য অবশ্যকর্তব্য। আর যে (এই নির্দেশ পালন করতে) অস্বীকার করবে তার জেনে রাখা উচিত যে আল্লাহ দুনিয়াবাসীদের প্রতি সামান্যও মুখাপেক্ষী নন।’ (সুরা আলে ইমরান, আয়াত : ৯৭)

যেহেতু হজে যেতে হলে আগে নিবন্ধন করতে হয়। নিবন্ধনের পর সিরিয়াল পেতে পেতে দুই-তিন বছর সময় লেগে যায়। তাই যে বছর হজে যাওয়ার দৃঢ়সংকল্প আছে—তার দুই-তিন বছর আগেই নিবন্ধন করতে হবে। সার্বিক প্রস্তুতি গ্রহণ করতে হবে।

কোরবানি করা: এ মাসের আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ আমল কোরবানি, যা ১০, ১১ বা ১২ তারিখে সম্পন্ন করতে হয়। এবং তা নিসাব পরিমাণ সম্পদের মালিকের ওপর ওয়াজিব—যিনি সাবালক ও সুস্থ মস্তিষ্কের অধিকারী। মহানবী (সা.) সরাসরি কোরবানির ব্যাপারে নির্দেশিত হয়েছেন। আল্লাহ বলেন, ‘তুমি তোমার রবের উদ্দেশ্যে সালাত আদায় করো এবং কোরবানি করো।’ (সুরা কাউসার, আয়াত : ২)

রাসুলে করিম (সা.) ইরশাদ করেছেন, ‘সামর্থ্য থাকা সত্ত্বেও যে ব্যক্তি কোরবানি করে না, সে যেন আমাদের ঈদগাহে না আসে।’ (মুসতাদরাকে হাকেম, হাদিস : ৭৫৬৬)

আর যাদের ওপর ওয়াজিব হয়নি, তারাও চাইলে সুন্নত হিসেবে কোরবানি করতে পারবে।

 

বেশি বেশি নেক আমল করা: এ মাসের প্রথম ১০ দিনের যেকোনো নেক আমল আল্লাহর অনেক প্রিয়। রাসুলুল্লাহ (সা.) ইরশাদ করেছেন, ‘আল্লাহর কাছে জিলহজের ১০ দিনের নেক আমলের চেয়ে অধিক প্রিয় অন্য কোনো দিনের আমল নেই।’ (বুখারি, হাদিস : ৯৬৯)

তাই প্রতিটি মুহূর্তে কোনো না কোনো নেক আমল করতে থাকা উচিত। যে কাজই করি তা যেন হয় ইহকালীন বা পরকালীন কোনো কল্যাণে। পাশাপাশি গুনাহ থেকে বিরত থাকাও বিশেষভাবে জরুরি।

প্রথম ৯ দিন রোজা রাখা: জিলহজের প্রথম ৯ দিন রোজা রাখা মুস্তাহাব। এর প্রতিটি রোজা এক বছরের রোজার সমতুল্য। এবং প্রথম ১০ রাতে ইবাদত করা উত্তম। এর প্রতিটি রাত লাইলাতুল কদর সমতুল্য। নবীজি (সা.) ইরশাদ করেছেন, ‘জিলহজের ১০ দিনের ইবাদত আল্লাহর নিকট অন্য দিনের ইবাদতের তুলনায় বেশি প্রিয়। প্রতিটি দিনের রোজা এক বছরের রোজার মতো। আর প্রতি রাতের ইবাদত লাইলাতুল কদরের ইবাদতের মতো।’ (তিরমিজি : ১/১৫৮)

পুরো ৯ দিন রোজা রাখা সম্ভব না হলে যত দিন রোজা রাখা সম্ভব তত দিন রাখা যেতে পারে। আর পুরো ১০ রাতে ইবাদত করা সম্ভব না হলে যত রাতে ইবাদত করা সম্ভব তত রাতে ইবাদত করা যেতে পারে। এতেও সাওয়াব পাওয়া যাবে।

বিশেষত আরাফার দিন রোজা রাখা: আরাফার দিন তথা ৯ জিলহজ রোজা রাখলে দুই বছরের (সগিরা) গুনাহ মাফ হয়ে যায়। তাই এ দিন রোজা রাখার আপ্রাণ চেষ্টা করা উচিত। নবীজি (সা.) বলেছেন, ‘আরাফার দিনের রোজার বিষয়ে আমি আল্লাহর কাছে প্রত্যাশা রাখি যে তিনি আগের এক বছরের এবং পরের এক বছরের গুনাহসমূহ ক্ষমা করে দেবেন।’ (মুসলিম, হাদিস : ১১৬২)

অতএব যে এলাকায় যখন জিলহজের ৯ তারিখ হবে সে এলাকায় তখন রোজা রাখলে এ ফজিলত লাভ করবে, ইনশাআল্লাহ।

নখ-চুল ইত্যাদি না কাটা: যারা কোরবানি করার ইচ্ছা করবে তাদের জন্য জিলহজ মাসের প্রথম থেকে কোরবানি করা পর্যন্ত নখ-চুল ইত্যাদি কাটা থেকে বিরত থাকা মুস্তাহাব। রাসুলুল্লাহ (সা.) বলেছেন, ‘যখন জিলহজের প্রথম দশক শুরু হবে তখন তোমাদের মধ্যে যে কোরবানি করবে সে যেন তার চুল ও নখ না কাটে।’ (মুসলিম, হাদিস : ১৯৭৭)

তবে কোরবানি করতে অক্ষম ব্যক্তি ঈদের পর নখ-চুল ইত্যাদি কাটলে তার পূর্ণ একটি কোরবানির সওয়াবের কথা হাদিস দ্বারা প্রমাণিত। (আবু দাউদ, হাদিস : ২৭৮৯)

এমনকি এ সময় বাচ্চাদের নখ-চুল কাটা থেকে বিরত থাকাও ভালো। অতএব জিলহজ আগমনের আগেই নখ-চুল ইত্যাদি কেটে পরিপাটি হয়ে থাকা বাঞ্ছনীয়।

তাকবিরে তাশরিক পড়া: ৯ জিলহজ ফজর থেকে ১৩ জিলহজ আসর পর্যন্ত মোট ২৩ ওয়াক্ত নামাজ। এর প্রত্যেক ফরজ নামাজের পর একবার তাকবিরে তাশরিক পড়া ওয়াজিব। চাই জামাতে নামাজ পড়া হোক বা একাকি, পুরুষ হোক বা নারী, মুকিম হোক বা মুসাফির। তাকবিরে তাশরিক পুরুষের জন্য জোরে পড়াও ওয়াজিব। তাকবিরে তাশরিক হলো, ‘আল্লাহু আকবার আল্লাহু আকবার, লা ইলাহা ইল্লাল্লাহু ওয়াল্লাহু আকবার, আল্লাহু আকবার ওয়ালিল্লাহিল হামদ।’

 
ঈদুল আজহার নামাজ পড়া: ঈদুল আজহার নামাজ প্রত্যেক সুস্থ মস্তিষ্কসম্পন্ন পুরুষের ওপর ওয়াজিব। সূর্যোদয়ের ২০-৩০ মিনিট পর থেকে দ্বিপ্রহরের পূর্ব পর্যন্ত ঈদের নামাজ পড়া যায়। নবীজি (সা.) ঈদুল আজহার নামাজ সাধারণত সূর্যোদয়ের আধাঘণ্টা থেকে এক ঘণ্টার মধ্যে আদায় করতেন। ঈদুল আজহার নামাজ একটু তাড়াতাড়ি পড়াই উত্তম। তবে প্রয়োজনে কিছুটা বিলম্ব করাও নিষিদ্ধ নয়।

লেখক : মুফতি মুহাম্মাদ ইসমাঈল, মুহাদ্দিস, জামিয়া আম্বরশাহ আল ইসলামিয়া, কারওয়ান বাজার, ঢাকা

ইসলাম বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
  • আগস্টের প্রথম প্রহরে ছাত্রলীগের মোমবাতি প্রজ্জালন

  • সব ক্লাবের চাইতে পার্লামেন্ট মেম্বার্স ক্লাব অনন্য : স্পিকার

  • গাউসিয়া কমিটিকে অ্যাম্বুলেন্স উপহার আ. লীগের ত্রাণ উপ-কমিটির

  • টিকা নিবন্ধনকারীর সংখ্যা দেড় কোটি ছুঁই ছুঁই

  • রংপুরের ৬৯ সাংবাদিক পেলেন প্রধানমন্ত্রীর আর্থিক সহায়তা

  • আজ সকালে বাংলাদেশ, বিকেলে অনুশীলন অস্ট্রেলিয়ার

  • লোকজ সংস্কৃতির বিকাশে এগিয়ে আসতে হবে

  • প্রথম ম্যাচে অনিশ্চিত সাকিব সৌম্য মোস্তাফিজ!

  • কাতারের ইতিহাসে প্রথম অলিম্পিক সোনা

  • রায়পুরে দাফনের ২৩ দিন পর বৃদ্ধের লাশ উত্তোলন

  • আগস্টের অশ্রু, বয়ে যায় নয়নে নয়নে

  • পটুয়াখালী মেডিকেলে আইসিইউর ৫ মনিটর দিলেন আ.লীগ নেতা

  • ফেনীতে খাল পরিষ্কার করল ছাত্রলীগ

  • এইচএসসির ফরম পূরণ শুরু ১২ আগস্ট, কমেছে ফি

  • অস্ট্রেলিয়া-বাংলাদেশ সিরিজ: মিরপুরে চলাচল থাকবে সীমিত

  • করোনা রোগীদের জন্য ফ্রি অ্যাম্বুলেন্স ও অক্সিজেন সার্ভিস

  • রাজশাহীতে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে চুরি, মালামালসহ গ্রেফতার ৪

  • অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানোর আহ্বান সেতুমন্ত্রীর

  • বাবা-মায়ের কবরের পাশে শায়িত হলেন আলী আশরাফ

  • অক্সিজেন সিলিন্ডার উপহার দিলেন আইনমন্ত্রী

  • যাত্রীবাহী মাইক্রো ভেবে ডিবির গাড়িতে ডাকাতি করতে গিয়ে গ্রেফতার

  • কর্মস্থলে ফিরতে বরিশাল মহাসড়কে জনস্রোত

  • পটুয়াখালী মেডিকেলে আইসিইউর ৫ মনিটর দিলেন আ.লীগ নেতা সুলতান

  • দেশে এক দামে ইন্টারনেট, ব্রডব্যান্ড গ্রাহক কোটি ছাড়ালো

  • বরিশালের নারীদের তৈরি পণ্য রপ্তানি হয় ২১ দেশে

  • রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের রিয়্যাক্টর ভবনের ডোম স্থাপন

  • বাংলাদেশে ভ্যাকসিন ফাইন্ডার চালু করছে ফেসবুক

  • জাপান থেকে এলো আরও প্রায় ৮ লাখ ডোজ টিকা

  • এনআইডি ও জন্ম নিবন্ধন ছাড়াও মিলবে ভ্যাকসিন

  • স্কিপিং রোপে বিশ্ব রেকর্ড করলেন ঠাকুরগাঁওয়ের রাসেল

  • ২৫শ টাকার নগদ সহায়তা পেয়েছেন ১৭ লাখ ২৪ হাজার মানুষ

  • পশুর নাড়ি-ভুঁড়ি রফতানি করে বছরে আয় ৩২০ কোটি টাকা

  • সদরঘাট লঞ্চ টার্মিনালে আধুনিকতার ছোঁয়া

  • কঙ্গোয় বাংলাদেশি শান্তিরক্ষীদের উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত

  • প্রতিবন্ধকতা জয় করে এগিয়ে চলছে কর্ণফুলী টানেলের নির্মাণকাজ

  • গণসংগীত শিল্পী ফকির আলমগীর আর নেই

  • করোনাযুদ্ধে ১৯৫ দেশের মধ্যে সেরা ২০-এ বাংলাদেশ

  • কুড়িগ্রামে ধানের মুড়ি ফসল কৃষিতে নতুন বিপ্লব

  • ডিএনসিসি কোভিড হাসপাতালে যোগ হচ্ছে আরও ৫০০ বেড

  • বিদ্যুৎ উৎপাদন বেড়েছে ১৩৭৯৩ মেগাওয়াট

  • মেরিন ড্রাইভ খুলে দেবে সম্ভাবনার নতুন দিগন্ত

  • তেল চুরি করতে গিয়ে পদ্মাসেতুর পিলারে ফেরির ধাক্কা

  • তিন দুম্বায় বাজিমাত সোহেলের

  • মেট্রোরেলের আরো দুই সেট ট্রেন এখন দেশে

  • বিদেশে পড়তে যাওয়া সব শিক্ষার্থী টিকা পাবেন: পররাষ্ট্র সচিব

  • লটকন বিক্রি করে ৩০ লাখ টাকার বাড়ি করলেন তোতা মিয়া

  • প্রতি মাসে ১ কোটি টিকা দেওয়ার পরিকল্পনা: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

  • ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য পৌনে ৫ কোটি টাকা, সাড়ে ৯ হাজার টন চাল

  • কলেবর বাড়ছে বিজিবির, নিয়োগ পাচ্ছে ১৫ হাজার সদস্য

  • ১৯ দিনে রেমিট্যান্স এলো ১৩ হাজার কোটি টাকা

  • যুক্তরাষ্ট্রে স্যাট পরীক্ষায় বাংলাদেশি অপূর্বর রেকর্ড

  • মৌখিক পরীক্ষা ছাড়াই নেয়া হচ্ছে ৮ হাজার চিকিৎসক-নার্স

  • বর্ণিল ফুলে সুশোভিত ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক

  • ৩১ জুলাই চালু হচ্ছে বিএসএমএমইউ ফিল্ড হাসপাতাল

  • ৭ আগস্ট থেকে গ্রামে গ্রামে করোনা টিকা

  • ‘করোনা টিকা নেওয়ার বয়সসীমা ১৮ হচ্ছে’

  • দেশে নির্মাণ হচ্ছে দক্ষিণ এশিয়ার বৃহত্তম আধুনিক খাদ্য সংরক্ষণাগার

  • কাপ্তাই জলবিদ্যুৎ কেন্দ্রে বেড়েছে উৎপাদন, সচল ৪ ইউনিট

  • মোবাইল থেকেই আয়কর রিটার্ন দাখিল করা যাবে

  • বারোমাসি সিডলেস ও এলাচি লেবু চাষ করে স্বাবলম্বী