মঙ্গলবার   ১৮ জানুয়ারি ২০২২

সর্বশেষ:
সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোর বার্ষিক ছুটি ৭৫ দিন আগামী মার্চে ঢাকা উত্তর সিটির ভোটের ইঙ্গিত সিইসির আস্থা ভোটে টিকে গেলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় পরিদর্শনে প্রধানমন্ত্রী রাষ্ট্রপতির সঙ্গে নেপালের বিদায়ী রাষ্ট্রদূতের সাক্ষাৎ সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে ইসি প্রতিজ্ঞাবদ্ধ: নূরুল হুদা বারবার আসতে পারব না, যত খুশি সাজা দিন: খালেদা জিয়া ‘আকাশবীণার’ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী ত্রিভুবনে আবারও বিমান দুর্ঘটনা ট্রেন-বাসের সংঘর্ষে নিহত ২, আহত ২৫ ভুয়া ছবি দিয়ে অপপ্রচার চালাচ্ছে মিয়ানমার: প্রধানমন্ত্রী
১১০০

একই জমিতে ৭ ফসলের চাষ, লাভবান হচ্ছেন কুড়িগ্রামের রৌমারীর কৃষকরা

ডেস্ক রিপোর্ট:

প্রকাশিত: ৩০ মার্চ ২০২১  

কুড়িগ্রামের রৌমারী উপজেলার চরাঞ্চলের কৃষি জমিতে একই সঙ্গে সাত ধরনের ফসলের চাষে ব্যাপক সাড়া জাগিয়েছেন কৃষকরা। একই জমিতে কয়েক ধরনের ফসল চাষ করে অধিক লাভবান হয়েছেন তারা।

স্থানীয়রা জানায়, এই অঞ্চলে ৮৫ ভাগ মানুষই কৃষির উপর নির্ভশীল। খরা, বন্যাসহ নানা প্রাকৃতিক দুর্যোগ ও প্রতিকূলতার সঙ্গে যুদ্ধ করে চাষাবাদ করে বেঁচে থাকতে হয় তাদের। প্রতি বছরই বন্যার ভয়াবহতা ও পাহাড়ি ঢল মোকাবিলা করতে হয় এই অঞ্চলের মানুষকে। কিন্তু বন্যার পানি নেমে যাওয়ার পর কৃষিজমিতে একই সঙ্গে সাত ধরনের ফসল চাষ করেন কৃষকরা। এতে সাফল্য অর্জন করছেন তারা। সমতল ভূমি যেটুকু আছে সেখানে ইরি-বোরো ধান চাষ করা হলেও অসমতল ও বালি মাটিতে চাষ করা হচ্ছে নানা জতীয় রবিশস্য।

সরে জমিন ঘুরে দেখা গেছে, উপজেলার যাদুরচর ইউনিয়নের ধনারচর, কোমড়ভাঙ্গী, কাশিয়াবাড়ী, লাঠিয়ালডাঙ্গা, দাঁতভাঙ্গা ইউনিয়নের কাজাইকাটা, বন্দবেড় ইউনিয়নের চরবাঘমারা, ও চরশৗলমারী ইউনিয়নের ঘুঘুমারী নামক এলাকার অর্ধশতাধীক হেক্টর কৃষি জমিতে সাতমিশালী ফসল চাষ করা হয়েছে। এসব ফসলের মধ্যে রয়েছে- লালশাক, টমেটো, বেগুন, লাউ, মরিচ, ঢেড়স ও আখ।

চরবাঘমারা গ্রামের আজমল, রফিকুল ইসলাম, হাবিবুর রহমান, ফলুয়ারচর গ্রামের মোজাম্মেল হক, আজিজুল হক, কাজাইকাটা গ্রামের জয়নাল, নুরন্নবী ও ঘুঘুমারী গ্রামের সাইদুর রহমান, ফিরোজ মিয়া জানান- চরাঞ্চলের জমিগুলো অসমতল। বালির পরিমাণ বেশি হওয়ায় ইরি-বোরোর পরিবর্তে একই জমিতে সাত রকমের ফসল চাষ করেন তারা। শুরুতেই আখ চাষ করেন। পরে ওই জমিতে শাক বোনেন। এসব রোপনের ১৫-১৬ দিন পর সারিবদ্ধভাবে মরিচ, বেগুন ও লাউ বীজ রোপন করেন। পরে এক মাসের মধ্যে সবজি বাজারজাত শুরু করতে পাড়েন তারা। এসব ফসলের মধ্যে বেগুন, মরিচ ও লাউ অধিক সময় ধরে বাজারজাত করে প্রচুর অর্থ উপার্জন করেন কৃষকরা। 

তারা জানান, আখ ক্ষেতে এসব সবজি চাষ করায় জমির পরিচর্যা ভালো হয়। ফলে আখের ফলনও বৃদ্ধি পায়।

এবিষয়ে রৌমারী উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শাহরিয়ার হোসেন বলেন, এ অঞ্চলে একই কৃষি জমিতে মিশ্র ফসল উৎপাদনের লক্ষ্যে প্রণোদনা ও পুনর্বাসনের আওতায় এনে বিভিন্ন বীজ দেওয়া হচ্ছে। এছাড়াও মিশ্র ফসল চাষে কৃষকদের উৎসাহিত ও বিভিন্ন পরার্মশ দেওয়ায় অধিক লাভবান হচ্ছেন কৃষকরা।

দেশের খবর বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
  • শিল্পনীতির সুষ্ঠু বাস্তবায়নে আইনি ভিত্তি জরুরি

  • ৯০ বছর বয়সে বিয়ে করলেন কুমিল্লা আইনজীবী সমিতির সভাপতি

  • ডিএমপির ১১ কর্মকর্তাকে বদলি

  • সবাইকে নিয়ে কাজ করবো, নারায়ণগঞ্জের নতুন ডিসি

  • রেঞ্জের শ্রেষ্ঠ খুলনা জেলা পুলিশ

  • চলতি অধিবেশনেই ইসি আইন পাসের চেষ্টা: কাদের

  • জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল আইনের খসড়া অনুমোদন

  • টিকার প্রথম ডোজ নিয়েছে ৭৭ লাখ শিক্ষার্থী

  • ‘মার্কিন নিষেধাজ্ঞায় পড়া কর্মকর্তারা দক্ষ ও দেশপ্রেমিক’

  • নির্বাচন কমিশন আইনের খসড়া অনুমোদন

  • নারায়ণগঞ্জে নেতিবাচক রাজনীতির ভরাডুবি: ওবায়দুল কাদের

  • ফায়ার সার্ভিসের ১৩ কর্মকর্তার পদোন্নতি

  • ডিসি সম্মেলন শুরু মঙ্গলবার

  • নারায়ণগঞ্জ ইসির সর্বোত্তম নির্বাচন : ইসি মাহবুব

  • ১৯৭৭ সালের সেনা হত্যাকাণ্ড গুরুত্ব দিয়ে দেখবে সরকার

  • ৫০ বছরের বেশি বয়সীরা বুস্টার ডোজ পাবেন: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

  • রাষ্ট্রপতির ভাষণের ওপর সংসদে ধন্যবাদ প্রস্তাব

  • ইসি গঠনে রাষ্ট্রপতির কাছে চার প্রস্তাব আওয়ামী লীগের

  • চরাঞ্চলগুলোতে চলছে কৃষকের কর্মযজ্ঞ

  • ১ বছরে ৩৩ বাংলাদেশি নারীকে উদ্ধার করেছে বিএসএফ

  • পর্যটনের নতুন সম্ভাবনা বান্দরবানের তমা তুঙ্গী

  • সম্পদ পুনর্মূল্যায়নের নির্দেশ পেট্রোবাংলাকে

  • বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে গেমিং অ্যাপ ‘আমার বঙ্গবন্ধু’

  • ৫০ বছর বয়সীরাও পাবেন বুস্টার ডোজ

  • বাঙালির অস্তিত্বে বারবার ফিরে আসবে শেখ মুজিব

  • বাঙালির অস্তিত্বে বারবার ফিরে আসবে শেখ মুজিব

  • নিজস্ব ভবনে যাত্রা শুরু আরএমপির সাইবার ক্রাইম ইউনিট

  • নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের নতুন কাউন্সিলর যারা

  • চাঁদপুরে শতাধিক শীতার্তদের পাশে পুনাক

  • খেলাধুলাই পারে যুবসমাজকে মাদক থেকে দূরে রাখতে : মেয়র আতিকুল

  • নগরীতে অত্যাধুনিক দৃষ্টিনন্দন আন্ডারপাস

  • নতুন ১৫৫টি আইএসপি লাইসেন্স দিচ্ছে সরকার

  • রাঙামাটির স্বপ্নের নানিয়ারচর সেতুর যাত্রা শুরু

  • যাত্রীদের নিরাপত্তা ও সড়কে অপরাধ প্রতিরোধে বসছে সিসি ক্যামেরা

  • আপাতত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে সীমিত পরিসরে ক্লাস চলবে: শিক্ষামন্ত্রী

  • আইডি বা রেজিস্ট্রেশন কার্ড দেখালেই টিকা পাবে শিক্ষার্থীরা

  • ১৫ জানুয়ারির পর টিকা ছাড়া ক্লাসে যেতে পারবে না শিক্ষার্থীরা

  • ৫৬ কোটি টাকার ‘বঙ্গা’ তৈরি হচ্ছে নওগাঁয়

  • পাসপোর্ট-ভিসার পরিবর্তে স্বল্পমেয়াদি অনুমতিপত্র ‘চালুর পরিকল্পনা’

  • ৬ মাসে হিলি বন্দরে ১৮৯ কোটি টাকার রাজস্ব আদায়

  • এক টানেই জালে ৩০০ মণ মাছ

  • বাস, ট্রেন ও লঞ্চে অর্ধেক যাত্রী নিতে হবে

  • মা হচ্ছেন পরীমণি, বাবা চিত্রনায়ক রাজ

  • ভিক্ষুক পুনর্বাসনে বরাদ্দ পাঁচ গুণ করা হচ্ছে

  • বড়শিতে ধরা পড়ল বিশাল ব্ল্যাক কার্প

  • এক যুগে কৃষি উদ্ভাবনে ঈর্ষণীয় সাফল্য

  • বাংলাদেশ থেকে দ্বিগুণ ইন্টারনেট ব্যান্ডউইডথ নেবে ভারত

  • সরিষায় সফলতা, চাষাবাদ বাড়ায় কমবে আমদানিনির্ভরতা

  • পাবনায় সরিষা ফুলের মধু থেকে আয় হবে ১০ কোটি

  • ঢাকায় হবে আন্তর্জাতিক মানের হেলিপোর্ট

  • এই বিমানেই দেশে ফিরেছিলেন বঙ্গবন্ধু

  • পাহাড়ে নবদিগন্তের সূচনা, স্বপ্ন বুনছেন রাঙামাটিবাসী

  • নারায়ণগঞ্জ আইভীরই

  • সংবিধান অনুযায়ী আইন প্রণয়ন ও ইসি গঠনের প্রস্তাব জেপির

  • পার্বত্য শান্তিচুক্তি বাস্তবায়নের কাজ চলছে: প্রধানমন্ত্রী

  • বিচ্ছেদ আবেদনের মধুর সমাপ্তি, রায়ে কাঁদলেন হাজারো মানুষ

  • কাঠের জিপ তৈরি করে ২ ভাইয়ের চমক, চলবে সৌরবিদ্যুতে

  • মেট্রোরেলের নিরাপত্তায় হচ্ছে এমআরটি পুলিশ ইউনিট

  • পাল্টে যাচ্ছে দক্ষিণাঞ্চলের স্বাস্থ্যসেবার চিত্র

  • মাঘের শীতেই লালচে-কমলা আভা ছড়াচ্ছে বসন্তের পলাশ